চকরিয়ায় গুঁড়িয়ে দিল কৃষকের সবজিক্ষেত থানায় জিডি

খাবারের সন্ধানে লোকালয়ে বন্য হাতি

চকরিয়া প্রতিনিধি | সোমবার , ৮ আগস্ট, ২০২২ at ৭:৫৬ পূর্বাহ্ণ

কঙবাজারের চকরিয়ার ডুলাহাজারায় দুইদিন ধরে তাণ্ডব চালিয়ে এক কৃষকের সবজি ক্ষেত গুঁড়িয়ে দিয়েছে বন্য হাতি। এতে কৃষকের অন্তত দুই লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি হয়েছে। ব্যাংক ও এনজিও থেকে নেওয়া ঋণের টাকায় সবজির আবাদ করেছিলেন কৃষক। এই অবস্থায় সরকারের পক্ষ থেকে ক্ষতিপূরণ পাওয়ার আশায় কৃষক চকরিয়া থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী রুজু করেছেন। ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকের নাম নুরুল ইসলাম (৫০)। তিনি চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের তিন নম্বর ওয়ার্ডের চা বাগান এলাকার মৃত আলী মিয়ার পুত্র। সরজমিন গেলে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক নুরুল ইসলাম জানান, ডুলাহাজারা ইউনিয়নের রিংভং মৌজার উত্তর পাড়ার পূর্ব পাশে ১৪০ শতাংশ জায়গা বর্গা নিয়ে বরবটি, শশা, লাউ, তিতকরলাসহ বিভিন্ন সবজির আবাদ করেছিলেন তিনি। কিন্তু খাবারের সন্ধানে পর পর দুইদিন ভোরে এসে একদল বন্য হাতি সবজি ক্ষেতে ব্যাপক তাণ্ডব চালায়। এতে তাঁর দুই লক্ষ টাকার ক্ষতি হয়েছে। এই ঘটনায় গতকাল রবিবার চকরিয়া থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী রুজু করেছেন তিনি।
সাধারণ ডায়েরীতে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক উল্লেখ করেন খতিয়ানভুক্ত জায়গা বর্গা নিয়ে এবং ব্র্যাক ও এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে তিনি সবজির আবাদ করেছিলেন। কিন্তু বন্য হাতির তাণ্ডবে সবকিছু লণ্ডভণ্ড হয়ে যাওয়ায় কীভাবে ঋণের টাকা পরিশোধ করবেন সেই চিন্তা ভর করছে তার মধ্যে। এব্যাপারে কঙবাজার উত্তর বনবিভাগের ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জকর্মকর্তা শেখ মিজানুর রহমান বলেন, বন্য হাতি ব্যক্তি মালিকাধীন জায়গায় ফসলের ক্ষতি করে থাকলে তা তদন্ত করে দেখা হবে। পরবর্তীতে আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিষয়টি উর্ধতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হবে যাতে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক যথাযথ ক্ষতিপূরণ পায়।