জন্মাষ্টমী উৎসব ১৮ আগস্ট শুরু ১৯ আগস্ট মহাশোভাযাত্রা

জেএম সেন হলে বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানমালা

আজাদী প্রতিবেদন | রবিবার , ১৪ আগস্ট, ২০২২ at ৬:২০ পূর্বাহ্ণ

জন্মাষ্টমী উদ্‌যাপন পরিষদ বাংলাদেশ-কেন্দ্রীয় কমিটির আয়োজনে আগামী ১৮ থেকে ২২ আগস্ট পাঁচদিন ব্যাপী শ্রীকৃষ্ণের জন্মতিথি জন্মাষ্টমী উৎসব সারাদেশব্যাপী মাহসাড়ম্বরে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্যদিয়ে উদ্‌যাপিত হবে। এ উপলক্ষে কেন্দ্রীয় পরিষদের পক্ষ থেকে ঐতিহাসিক জে এম সেন হলে বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করা হয়েছে। এছাড়াও বিভিন্ন জেলায় বস্ত্র বিতরণ, রক্তদান, অনাথ ও দুস্থদের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ, গীতাপাঠ, সন্ধ্যারতি, জন্মাষ্টমী পূজা ও ভোগ, দেশ ও জাতির কল্যাণে এবং বৈশ্বিক করোনা মহামারী হতে মুক্তির জন্য সমবেত প্রার্থনা করা হবে।

১৯ আগস্ট সকাল ৯টায় বের করা হবে ঐতিহাসিক মহাশোভাযাত্রা। শোভাযাত্রায় বিপুল সংখ্যক ভক্ত সমাগম হবে। গতকাল শনিবার সকালে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের বঙ্গবন্ধু হলে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে এসব কথা বলেন জন্মাষ্টমী উদ্‌যাপন পরিষদ বাংলাদেশ-কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি শিল্পপতি সুকুমার চৌধুরী।
লিখিত বক্তব্যে সামপ্রদায়িক অপশক্তির উত্থানে গভীর উদ্বেগ প্রকাশসহ হামলা-নির্যাতনের সুষ্ঠু তদন্তপূর্বক বিচারের দাবি জানান তিনি।

লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, পাঁচদিনব্যাপী বর্ণাঢ্য আয়োজনমালায় রয়েছে- ১৮ আগস্ট বিকাল ৪টায় প্রধানমন্ত্রীর সাথে ভার্চুয়ালি সাক্ষাৎকার অনুষ্ঠান। উদ্বোধক থাকবেন খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার। প্রধান অতিথি থাকবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। সন্ধ্যা ৭টায় ধর্মসম্মেলনে উদ্বোধক থাকবেন চট্টগ্রাম রামকৃষ্ণ সেবাশ্রমের সম্পাদক শক্তিনাথানন্দজী মহারাজ। অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রীয় অতিথি, বিদেশী কূটনীতিকবর্গ ও মহাত্মা মহারাজরা উপস্থিত থাকবেন। ১৯ আগস্ট সকাল ৯টায় ঐতিহাসিক মহাশোভাযাত্রা। শোভাযাত্রার উদ্বোধন করবেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন। প্রধান অতিথি থাকবেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। দুপুর ১টায় মাতৃসম্মেলনে প্রধান অতিথি থাকবেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা। সন্ধ্যা ৭টায় ধর্মমহাসম্মেলনে মঙ্গলপ্রদীপ প্রজ্বালন করবেন ঋষিধাম ও তুলসীধামের মোহন্ত সুদর্শনানন্দ পুরী মহারাজ। উদ্বোধক থাকবেন কৈবল্যধামের মোহন্ত মহারাজ কালীপদ ভট্টাচার্য্য। আশীর্বাদক থাকবেন পাঁচুরিয়া তপোবন আশ্রমের অধ্যক্ষ স্বামী রবিশ্বরানন্দ পুরী মহারাজ। প্রধান অতিথি থাকবেন বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশী। মহান অতিথি থাকবেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল। রাত ১২টায় জন্মাষ্টমী পূজা। ২০ ও ২১ আগস্ট অহোরাত্র ষোড়শপ্রহরব্যাপী মহানামযজ্ঞ। প্রতিদিন দুপুরে ও রাতে রয়েছে মহাপ্রসাদ বিতরণ। ২২ আগস্ট ব্রাহ্মমুহূর্তে মহানামযজ্ঞের পূর্ণাহুতি।

সংবাদ সম্মেলনে স্বাগত বক্তব্য দেন, পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী প্রবীর কুমার সেন। উপস্থিত ছিলেন জন্মাষ্টমী উদ্‌যাপন পরিষদের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সুজিত কুমার বিশ্বাস, মহানগর পূজা উদ্‌যাপন পরিষদের সভাপতি লায়ন আশীষ কুমার ভট্টাচার্য্য, সাধারণ সম্পাদক হিল্লোল সেন উজ্জ্বল, মহানগর জন্মাষ্টমী উদ্‌যাপন পরিষদের সভাপতি লায়ন দুলাল চন্দ্র দে, সাধারণ সম্পাদক লায়ন শংকর সেনগুপ্ত, মহাশোভাযাত্রা কমিটির আহ্বায়ক মাইকেল দে, পরিষদ কর্মকর্তা লায়ন তপন কান্তি দাশ, প্রকৌশলী আশুতোষ দাশ, তাপস কুমার নন্দী, আশীষ চৌধুরী, শ্রীপ্রকাশ দাশ অসিত, সুমন দেবনাথ, প্রকৌশলী সুভাষ গুহ, প্রকৌশলী তুহিন রায়, ডা. বিধান মিত্র প্রমুখ।