সরকার গঠনে ব্যর্থ নেতানিয়াহু

বুধবার , ২৩ অক্টোবর, ২০১৯ at ১০:৫১ পূর্বাহ্ণ
17

সরকার গঠন করতে পারবেন না বলে জানিয়েছেন দীর্ঘ সময় ধরে ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্বপালন করে আসা বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু। তিনি সরকার গঠনের সুযোগ নিজের রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বীর হাতে ছেড়ে দিয়েছেন বলে বিবিসি জানিয়েছে। নেতানিয়াহু গত এক দশক ধরে ক্ষমতায় থাকলেও সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে তার দল সংখ্যাগরিষ্ঠতা পায়নি। ওই নির্বাচনে তার প্রতিদ্বন্দ্বী বেনি গান্টসের নেতৃত্বাধীন ব্লু এন্ড হোয়াইট পার্টি সবচেয়ে বেশি আসন পেলেও পরিষ্কারভাবে কোনো দলই জয় পায়নি। খবর বিডিনিউজের।
নির্বাচনে ইসরায়েলের পার্লামেন্ট নেসেটের ১২০ আসনের মধ্যে গান্টসের ব্লু এন্ড হোয়াইট পার্টি ৩৩টি আসন, নেতানিয়াহুর লিকুদ পার্টি ৩২ আসন পায়। অন্যান্য দলের মধ্যে কট্টরপন্থিরা ১৬টি, জয়েন্ট লিস্ট ১৩টি, ডানপন্থি ইসরায়েল বেইতেনু ৮টি, ইয়ামিনা ৭টি, লেবার গেশার ৬টি ও ডেমোক্রেটিক ক্যাম্প ৫টি আসন পায়। দলগুলোর এই ফলাফলে ডানপন্থিদের পাল্লা ভারি হওয়ায় সরকার গঠনে নেতানিয়াহুরই সফল হওয়ার সম্ভাবনা ছিল। এ কারণে প্রথমে ক্ষমতাসীন প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহুকেই সরকার গঠনের আমন্ত্রণ জানান দেশটির প্রেসিডেন্ট রুভেন রিভলিন। কিন্তু সোমবার সরকার গঠনের চেষ্টা থেকে সরে আসার ঘোষণা দিয়ে নেতানিয়াহু জানান, একটি জোট সরকার গঠনের সব রকম চেষ্টা সত্ত্বেও তার উদ্যোগকে সফল হতে দেওয়া হয়নি। এ পরিস্থিতিতে প্রেসিডেন্ট রিভলিন এখন ব্লু এন্ড হোয়াইট পার্টির নেতা গান্টসকে সরকার গঠনের উদ্যোগ নেওয়ার জন্য আমন্ত্রণ জানাবেন। সরকার গঠনের আলাপ-আলোচনা চালাতে গান্টসকে ২৮ দিন সময় দিবেন বলে রিভলিন জানিয়েছেন। ইসরায়েলি আরব আইনপ্রণেতারা গান্টসের প্রতি তাদের সমর্থন আগেই জানিয়ে রেখেছেন। কিন্তু মধ্য-ডানপন্থি জোটের এই নেতাকে সরকার গঠন করতে হলে ৬১ জন আইনপ্রণেতার সমর্থন পেতে হবে; যেখান থেকে এই মুহূর্তে তিনি অন্তত ১২টি আসনে পিছিয়ে আছেন।

x