সরকারের উন্নয়নের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে যুব শক্তিকে কাজে লাগাতে হবে

জাতীয় যুব দিবসের আলোচনা সভায় বক্তারা

শুক্রবার , ২ নভেম্বর, ২০১৮ at ৮:৩০ পূর্বাহ্ণ
62

চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার অফিস, জেলা প্রশাসন ও যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উদ্যোগে জাতীয় যুব দিবস’১৮ উদযাপন উপলক্ষে আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠান ১ নভেম্বর সকাল সাড়ে ১০টায় জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়।
অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (উন্নয়ন) মো. নুরুল আলম নিজামীর সভাপতিত্বে ও যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর কোতোয়ালী থানা ইউনিট কর্মকর্তা মো. জাহান উদ্দিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার মো. আবদুল মান্নান। বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. দেলোয়ার হোসেন, চট্টগ্রাম সরকারি মহিলা কলেজের সহযোগী অধ্যাপক আবদুল্লাহ আল মামুন, যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের সিনিয়র প্রশিক্ষক মো. আবদুল খালেক। স্বাগত বক্তব্য রাখেন যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক সালেহ আহমেদ। বিভিন্ন যুব সংগঠনের পক্ষে বক্তব্য রাখেন সুমিত্রা তঞ্চঙ্গ্যা, নাজমুল হক, আনিসুল হক, সফিউল বশর, মো. আলমগীর সৈকত, আনিসুর রহমান মুন্না, শহীদুল ইসলাম দুদুল প্রমুখ। সভাশেষে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে যুব পুরস্কার ও যুব ঋণের চেক বিতরণ করেন অতিথিবৃন্দ। যুব উন্নয়নের বিভিন্নস্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, বেসরকারি যুব সংগঠন ও উন্নয়ন সংস্থার প্রতিনিধিরা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। সভার পূর্বে সকাল ১০টায় চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসের সামনে বেলুন উড়িয়ে জাতীয় যুব দিবসের উদ্বোধন করেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বিভাগীয় কমিশনার মো. আবদুল মান্নান। এরপর সেখান থেকে একটি বর্ণাঢ্য যুব র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি প্রধান প্রধান সড়ক ঘুরে জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে গিয়ে শেষ হয়। জাতীয় যুব দিবসের এবারের প্রতিপাদ্য ছিল ‘জেগেছে যুব গড়বে দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ’। সভায় বক্তারা বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম না হলে আমরা একটি মানচিত্র ও লাল সবুজের পতাকা খচিত স্বাধীন বাংলাদেশ পেতাম না। তাঁর স্বপ্ন ছিল সোনার বাংলাদেশ গড়া। আজ তাঁরই সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর দেশ উন্নয়নের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। সরকারের এ উন্নয়নের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে হলে যুব শক্তিকে কাজে লাগাতে হবে। তাহলে সরকারের ভিশন ২০২১ সালে মধ্যম আয়ের দেশ ও ডিজিটাল বাংলাদেশ, ২০৩০ সালে এসডিজি অর্জন এবং ২০৪১ সালে এ দেশকে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত করতে পারবো। বক্তারা টেকসই সমৃদ্ধ বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ বিনির্মাণসহ সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও মাদকরোধে যুব সমাজকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। খবর বিজ্ঞপ্তির।

x