রাঙ্গুনিয়ায় মুফতী সৈয়দ আবদুল ওয়াসে’র বার্ষিক ওরশ

বুধবার , ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ at ৯:০৯ পূর্বাহ্ণ
42

রাঙ্গুনিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান কাজী এম এন আলম বলেন, আল্লাহর সান্নিধ্য অর্জন এবং ইহকালীন শান্তি ও পরকালীন মুক্তির জন্য হযরত রাসূলুল্লাহ্‌ (সা.) ইসলামকে মানুষের পরিপূর্ণ জীবন বিধান রূপে প্রতিষ্ঠা করে যান। তাই মুসলমানদের পূর্ণাঙ্গভাবে ইসলামী বিধি-বিধান মেনে চলতে হয়। তিনি বলেন, ইসলামে অজ্ঞতা, মিথ্যাচারিতা ও কপটতার স্থান নেই। আত্মোপলদ্ধি ও আত্মশুদ্ধির জন্য হাক্কানী-রাব্বানী উলামা-মাশায়িখের শরণাপন্ন হতে হবে। তিনি রাঙ্গুনিয়া বেতাগীর কাউখালী হযরত আল্লামা মুফতী সৈয়দ আবদুল ওয়াসে (রাহ.) এর বার্ষিক ওরসে পাক মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছিলেন। দরবারের সাজ্জাদানশীন মাওলানা সৈয়দ আবদুল হাফেজ-এর সভাপতিত্বে এতে প্রধান আলোচক ছিলেন চট্টগ্রাম জামেয়া আহ্‌মদিয়া সুন্নিয়া কামিল মাদ্‌রাসার আরবী প্রভাষক মাওলানা আবুল আসাদ মুহাম্মদ জোবাইর রিজভী।
অতিথি বক্তা ছিলেন পোমরা জামিউল উলূম ফাযিল মাদ্‌রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা সৈয়দ মুহাম্মদ আবু তাহের, আহ্‌লে সুন্নাত সমম্বয় কমিটির আহবায়ক মাওলানা হাফিয সৈয়দ মুহাম্মদ রূহুল আমীন, মানবাধিকার গবেষক মাওলানা মুহাম্মদ জহুরুল আনোয়ার, চট্টগ্রাম জুলেখা আমিনুর রহমান সিটি কর্পোরেশন উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাওলানা হাফিয কাযী খাইরুল আনোয়ার। উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন শাহ্‌যাদা সৈয়দ আবদুস সালাম। শাহ্‌যাদা সৈয়দ আবদুল নোমানের সঞ্চালনায় আলোচক ছিলেন সৈয়্যদ আবদুল হামীদ আলহাদী, মাওলানা মুহাম্মদ মূসা নঈমী, মাওলানা মুহাম্মদ আবু তৈয়ব নঈমী, মাওলানা হাফিয নঈমুল মোস্তফা নঈমী, মাওলানা মুহাম্মদ ইউসুফ নঈমী, মুহাম্মদ নূরুল ইসলাম সওদাগর, মুহাম্মদ নেজাম প্রমুখ। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

x