বাঁশের তৈরি পণ্য থেকে হাজার কোটি টাকা আয় সম্ভব

কর্মশালায় বিশেষজ্ঞদের অভিমত

আজাদী প্রতিবেদন

শুক্রবার , ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ at ৫:২৫ পূর্বাহ্ণ
8

বাংলাদেশ বন গবেষণা ইনস্টিটিউটে (বিএফআরআই) গতকাল অনুষ্ঠিত বাঁশের যোজিত পণ্য তৈরির কৌশল বিষয়ক এক কর্মশালায় বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, বাঁশ হচ্ছে মানবজাতির বন্ধু। পৃথিবীর বহু দেশে বাঁশকে শুধু বন্ধু নয়, ভাই হিসেবে বিবেচনা করা হয়। বাঁশ থেকে হয় না এমন পণ্যের তালিকা খুবই সংকীর্ণ বলে উল্লেখ করে বিশেষজ্ঞরা বলেন, বাঁশের সত্যিকার ব্যবহার নিশ্চিত করতে পারলে হাজার হাজার কোটি টাকা আয় সম্ভব। চীন প্রতি বছর কয়েক হাজার কোটি ডলারের পণ্য উৎপাদন এবং বিশ্বব্যাপী রপ্তানি করে। চীনে মিসাইলের খোলস থেকে শুরু করে মেট্রোর টিউব পর্যন্ত বাঁশ দিয়ে তৈরি করা হচ্ছে বলে উল্লেখ করে বিশেষজ্ঞরা বলেন, প্রাচীনকালে যেসব দেশে বাঁশ উৎপাদন হত সেসব দেশকে ভাগ্যবান দেশ মনে করা হতো। ভাগ্যের সাথে বাঁশের সম্পর্ক ছিল। বাঁশের বহুবিধ ব্যবহার নিশ্চিত করে আমাদের ভাগ্য ফেরানোর সময় এসেছে বলেও বিশেষজ্ঞরা উল্লেখ করেন।
গতকাল সকালে বাংলাদেশ বন গবেষণাগার ইনস্টিটিউটের পরিচালক ড. মাসুদুর রহমানের সভাপতিত্বে এবং প্রশিক্ষণ ও প্রযুক্তি হস্তান্তর ইউনিটের সদস্য সচিব মৃত্তিকা বিজ্ঞানী এম জহিরুল আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত কর্মশালায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ইনস্টিটিউটের সদ্য বিদায়ী পরিচালক ড. খুরশীদ আকতার। প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বিভাগীয় কর্মকর্তা ড. মোহাম্মদ মাহবুবুর রহমান এবং রিসার্চ অফিসার মোহাম্মদ মাহবুবুর রহমান। কর্মশালায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রশিক্ষণ ও প্রযুক্তি হস্তান্তর ইউনিটের আহ্বায়ক মোহাম্মদ আনিসুর রহমান। কর্মশালায় চট্টগ্রামের খ্যাতিমান শিল্পপতি এ কে খান গ্রুপের পরিচালক এ কে শামসুদ্দীন খান, কোম্পানির চিফ কোঅর্ডিনেটর অফিসার শারফেনাজ শামা খান বক্তব্য রাখেন। বাঁশের ফার্নিচার তৈরির উদ্যোক্তা সৃষ্টির জন্য আয়োজিত কর্মশালায় ফার্নিচার ব্যবসায়ী সমিতিসহ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সেক্টরের প্রতিনিধিরা অংশগ্রহণ করেন।