ফেসবুকের ভুয়া অ্যাকাউন্ট থেকেই শুরু হয় ‘গুজব’

শনিবার , ২৩ নভেম্বর, ২০১৯ at ৪:৫৬ পূর্বাহ্ণ
12

ফেসবুক যে ভুয়া অ্যাকাউন্টে ভরা, এ কথা সবাই জানে। ফেসবুকের সাম্প্রতিক ট্রান্সপারেন্সি প্রতিবেদনে সে তথ্যই আবার প্রমাণ হলো। ফেসবুক এ বছরের এপ্রিল থেকে সেপ্টেম্বরের মধ্যে ৩২০ কোটি ভুয়া অ্যাকাউন্ট সরিয়েছে বলে প্রতিবেদনে জানানো হয়। গত বছরের একই সময়ে মুছে ফেলা অ্যাকাউন্টের পরিমাণ ছিল ১৫০ কোটি। এ সময়ের মধ্যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমটি ১ কোটি ১৪ লাখের মতো ঘৃণাত্মক মন্তব্য ছড়িয়েছে। ২০১৮ সালের ঐ সময়ে সংখ্যাটি ছিল প্রায় ৫৪ লাখের মতো। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে, ফেসবুক কি সব ভুয়া অ্যাকাউন্ট ধরতে পারছে?
ফেসবুক কর্তৃপক্ষও তাদের সাইটে ভুয়া অ্যাকাউন্ট থাকার কথা স্বীকার করে নেয়। এর আগে ফেসবুকের প্রধান অর্থনৈতিক কর্মকর্তা (সিএফও) ডেভিড এম. ওহেনার বলেছিলেন, ফেসবুকে প্রতি মাসে যে পরিমাণ অ্যাকাউন্ট সক্রিয় হয় তার ১০ শতাংশ নকল। এ অ্যাকাউন্টগুলো সম্পর্কে তার ভাষ্য, একই ব্যক্তির একাধিক অ্যাকাউন্ট এগুলো। এসব অ্যাকাউন্টে অন্যান্য অ্যাকাউন্টের মতো সত্যিকারের কার্যক্রম পরিচালিত হয়। তবে ফেসবুকে ২-৩ শতাংশ অ্যাকাউন্ট আছে, যা পুরোপুরি ভুয়া। এগুলো স্প্যাম ছড়ানোসহ নীতিমালা ভঙ্গের কাজ করে। ব্যবসা ও প্রযুক্তিবিষয়ক ওয়েবসাইট বিজনেস ইনসাইডের তথ্য অনুযায়ী, ভুয়া অ্যাকাউন্ট সম্পর্কে নতুন তথ্য প্রকাশের আগে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ বলেছিল, সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমটিতে নকল অ্যাকাউন্টের সংখ্যা ৬ শতাংশ আর ভুয়া অ্যাকাউন্ট আছে ১ শতাংশ। অর্থাৎ সম্প্রতি ফেসবুকে ভুয়া ও নকল অ্যাকাউন্ট বেড়ে গেছে। ফেসবুক কর্তৃপক্ষ সম্প্রতি জানিয়েছে, তাদের প্রায় ২৫০ কোটি অ্যাকাউন্টের মধ্যে ৫ শতাংশ ভুয়া অ্যাকাউন্ট।

x