পাহাড়তলী আমবাগানে ১২শ’ অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

অভিযান চলাকালে বুলডোজারে ইট- পাটকেল নিক্ষেপ, চালক আহত

আজাদী প্রতিবেদন

শুক্রবার , ৮ নভেম্বর, ২০১৯ at ৪:২০ পূর্বাহ্ণ
675

পাহাড়তলী আমবাগান-ভাঙ্গারপুল এলাকায় গতকাল রেলের ১,২২০টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। এ সময় উদ্ধার হওয়া জমির পরিমাণ ৫ দশমিক ৪৩ একর। যার বর্তমান বাজার মূল্য ১৬৫ কোটি টাকা বলে জানান বিভাগীয় ভূ-সম্পত্তি কর্মকর্তা মো. মাহবুব উল করিম। এদিকে অভিযান চলাকালে অবৈধ বস্তিবাসীরা বুলডোজারে পাথর ছুঁড়ে মারে। এতে বুলডোজার চালক আহত হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল থেকে পাহাড়তলী আমবাগান এলাকায় রেলের উচ্ছেদ অভিযান শুরু হয়। দুপুরে দিকে পাহাড়তলীর আমবাগানের ভাঙ্গারমুখে উচ্ছেদে গেলে এ ঘটনা ঘটে।
রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলে অবৈধ দখলের বিরুদ্ধে গতকাল সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত সবচেয়ে বড় অভিযান চালিয়েছে রেলওয়ের ভূ-সম্পত্তি বিভাগ। পাহাড়তলীর আমবাগানে ভাঙার পুল সংলগ্ন এলাকায় এ অভিযান চালানো হয়।
ভূ-সম্পত্তি কর্মকর্তা মো. মাহবুব উল করিম আজাদীকে জানান, দুপুর আড়াইটায় আমরা যখন খাওয়া-দাওয়ার জন্য কিছুটা সময় বিরতি দিয়েছি তখন ঐ সুযোগে আমবাগান ভাঙ্গারপুল এলাকায় অবৈধ দখলদাররা আমাদের বুলডোজার লক্ষ্য করে উপর্যপুরি ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। এতে ওই বুলডোজারের সামনের জানালার অংশ ভেঙে যায় এবং ড্রাইভার আহত হন। ড্রাইভারকে আমরা চমেক হাসাপাতালে পাঠিয়েছি। উচ্ছেদ অভিযানে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক নাসির উদ্দিন আহমেদ, প্রধান ভূ-সম্পত্তি কর্মকর্তা ইশরাত রেজা, বিভাগীয় ভূ-সম্পত্তি কর্মকর্তা মো. মাহবুব উল করিম, সিএমপির ৬০ জন পুলিশ, জিআরপির ১১জন ও রেলওয়ের নিরাপত্তা বাহিনীর ১৭জন সদস্য অংশ নেন।

x