পতিতা পল্লীতে বাপ্পি রাজের প্রেমে বন্দি মৌসুমী

মঙ্গলবার , ১০ ডিসেম্বর, ২০১৯ at ৬:৫৬ পূর্বাহ্ণ

 

বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলের খুলনা, বাগের হাট ও মংলা বন্দরের বানিয়াশানতা পতিতা পল্লীতে শেষ দেখা হয়েছে তাদের। ওখানকার ঘটে যাওয়া প্রতারণা আর বাস্তবতার নিয়মিত চিত্র দেখেছেন তারা। আর সেখানকার প্রেম ও প্রতারণার গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছ স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘শেষ দেখা’। এটি রচনা ও পরিচালনা করেছেন আরাফাত রহমান। এতে প্রধান দুই চরিত্রে অভিনয় করেছেন বাপ্পি রাজ ও মৌসুমী হামিদ। নির্মাতা আরাফাত রহমান জানালেন, একটা অসম প্রেমের কাহিনি দেখানো হয়েছে এই চলচ্চিত্রে। ধোপার ছেলে ও কাজের মেয়ে প্রেমে জড়িয়ে যাওয়ার গল্প। ইতোমধ্যে ধ্রুব টিভির ইউটিউব চ্যানেলে এই স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটির প্রমো প্রকাশ করা হয়েছে। অভিনেতা বাপ্পিরাজ বলেন, দক্ষিণাঞ্চলের বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে আমরা শুটিং করেছি। মংলার শুটিং করাটা বেশ কষ্টসাধ্য ছিল। মংলা বন্দরের বানিয়াশানতা পতিতা পল্লীতে গল্পটির চিত্রায়ন করা হয়েছে। এখানকার নিয়মিত ঘটে যাওয়া প্রতারণা এবং বাস্তবতা এই সিনেমার কেন্দ্রবিন্দু। মৌসুমী হামিদ সহশিল্পী হিসেবে বেশ সহযোগিতা করেছেন। এটা মুক্তি পাওয়ার পর আসলে বোঝা যাবে আমাদের কাজ কতটা সার্থক হয়েছে। জানা গেছে, ১১ ডিসেম্বর ‘শেষ দেখা’ প্রকাশ হবে ধ্রুব টিভির ইউটিউব চ্যানেলে। ধ্রুব এন্টারটেইনমেন্টের ব্যানারে নির্মিত স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটির সহযোগী নির্মাণে ছিলেন বাপ্পি রাজ।

x