নির্বাচনে জয়লাভের জন্য সকল ভেদাভেদ ভুলে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে

জহুর আহমদ চৌধুরী ফাউন্ডেশনের সাথে মতবিনিময়ে ওবায়দুল কাদের

সোমবার , ২৭ আগস্ট, ২০১৮ at ৭:০৭ পূর্বাহ্ণ
75

সড়ক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপির সাথে গত ২৪ আগস্ট রাতে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে জহুর আহমদ চৌধুরী ফাউন্ডেশনের এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও ফাউন্ডেশনের প্রধান উপদেষ্টা মাহতাব উদ্দীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, উপ প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, উপ দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব মোছলেম উদ্দীন আহমদ, চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার আবদুল মান্নান, চট্টগ্রাম উত্তরজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ প্রশাসক এম..সালাম, পটিয়ার সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরী, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়র চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী, চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক ইলিয়াছ হোসেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরিন আকতার, জেলা পুলিশ সুপার নুরে আলম মিনা, জাতীয় শ্রমিকলীগ কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব শফর আলী, রূপালী ব্যাংকের পরিচালক, চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি সাংবাদিক আবু সুফিয়ান, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের উপদেষ্ঠা আলহাজ্ব শেখ মাহমুদ ইসহাক, সহ সভাপতি আলতাফ হোসেন বাচ্চু, চট্টগ্রাম মহানগর মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি হাসিনা মহিউদ্দীন, চট্টগ্রাম উত্তরজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক আলহাজ্ব গিয়াস উদ্দীন, রাউজান উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব এহসানুল হায়দার চৌধুরী বাবুল, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুল হায়দার চৌধুরী রোটন, মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা মো: ইছা, সাবেক কাউন্সিলর জাবেদ নজরুল ইসলাম, বর্তমান সভাপতি ইমরান আহমদ ইমু, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক জাকারিয়া দস্তগীর, সাবেক মন্ত্রী জহুর আহমদ চৌধুরী’র দৌহিত্র ইয়ামিন আনামসহ আরো অনেকে।

এসময় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি বলেন, আগামী নির্বাচনে দলকে পুনরায় ক্ষমতায় আনতে এখন থেকেই দলের সকলকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। দলের নমিনেশন যাকেই দেয়া হোক না কেন তার পক্ষে বিজয় সুনিশ্চিত করার জন্য দৃঢ় প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হতে হবে। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের আমলে বিগত ১০ বছরে যে অভূতপূর্ব উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়িত হয়েছে তা অতীতের কোন সরকারই করতে পারেনি। আর এই সমস্ত উন্নয়নের সঠিক প্রচার প্রসার তৃণমূলের মানুষের মাঝে পৌঁছে দিতে হবে। পদপদবীর উদ্ধে উঠে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করার জন্য ঐক্যবদ্ধ কাজ করার কোন বিকল্প নেই। তিনি বলেন, সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে দলের পরাজয়ের মূলে অনৈক্য। অনুরূপ কক্সবাজার পৌর নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিজয়কে একটি ঐতিহাসিক বিজয় বলে অভিহিত করেন তিনি এ বিজয় থেকেও ঐক্যবদ্ধ আওয়ামীলীগের প্রতিচ্ছবি দেখার আহবান জানান। তিনি ছাত্রলীগের উদ্দেশ্যে বলেন, নেত্রী প্রায় ৩ মাস অনেক যাচাই বাচাই করে অনেক বিশ্বাস করে ছাত্রলীগের কমিটি গঠন করেছেন। যাতে করে জামাত বিএনপি কিংবা স্বাধীনতাবিরোধী কেউ আমাদের দলে ঢুকতে না পারে। তাই আগামীতে ছাত্রলীগকে তাদের দায়িত্ব দেশপ্রেম আর বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সত্যিকারের সৈনিক হিসেবে আগামী নির্বাচনে ভ্যানগার্ডের ভূমিকা পালন করতে হবে। তিনি বলেন, আগস্ট মাস বাঙালি জাতির সবচেয়ে দুর্ভাগ্যের ও ষড়যন্ত্রের মাস। এই মাসে আমরা হারিয়েছি আমাদের জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে। তিনি বঙ্গবন্ধুসহ ১৫ আগস্টে নিহত সকল শহীদদের আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন। খবর প্রেসবিজ্ঞপ্তির।

x