নিবেদিত শিক্ষকরূপে সর্বজন শ্রদ্ধেয় ছিলেন কাজি রফিকুল হক

স্মরণ সভায় ড. ইফতেখার উদ্দিন

সোমবার , ৭ অক্টোবর, ২০১৯ at ৬:১৬ পূর্বাহ্ণ

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রামের (ইউএসটিসি’র) সাবেক ট্রেজারার অধ্যাপক ডা. কাজি রফিকুল হক স্মরণে নাগরিক স্মরণসভা ও দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী বলেছেন, তিনি উচুঁ মাত্রায় অধ্যয়নকারী ও অধ্যাপনায় নিভৃত ছিলেন আজীবন। একাধারে ৫০ বছর এনাটমির শিক্ষক থাকাকালে একজন বিজ্ঞ শিক্ষক হিসেবে বাংলা, ইংরেজি, আরবি, উর্দূ, হিন্দী এবং মেডিক্যাল টেকনিক্যাল বিষয়ে সুপন্ডিত ছিলেন তিনি। উনার টেবিলে সবসময় বই, পত্রিকা এবং ধর্মীয় গ্রন্থ ভরপুর ছিল। উনার ইংরেজি উচ্চারণ ও উপস্থাপনা চমৎকার ছিল। তিনি দেশি-বিদেশি ছাত্র-ছাত্রীদের কাছে একজন শিক্ষক এবং অভিভাবক হিসেবে প্রিয় ছিলেন। তিনি ইউএসটিসির এনাটমি ডিপার্টমেন্টের ২৫ বছর চেয়ারম্যান থাকাকালে মেডিক্যাল শিক্ষার এনাটমির ও বেসিক বিষয়সমূহের বিভাগের লিডার হিসেবে নিষ্ঠাবান এবং পদ মর্যাদার সম্মান সবসময় অক্ষুন্ন রেখেছেন।
প্রধান আলোচকের বক্তব্যে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রামের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ডা. প্রভাত চন্দ্র বড়ুয়া বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন জ্ঞানী, গুণী, বিনয়ী, মহৎ, উদার, অসম্প্রাদায়িক এবং নিবেদিত শিক্ষকরূপে তিনি দিপ্তীময় সর্বজন শ্রদ্ধেয়। দেশি-বিদেশী ছাত্র, শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট তিনি পরম সম্মানিত, পরিক্ষিত, বিশ্বস্ত এবং সর্বজন নন্দিত ছিলেন। প্রতিষ্ঠানটির যে কোন বড় সংকটে তিনিই হাল ধরেছেন।
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় আয়োজিত নাগরিক স্মরণসভা ও দোয়া মাহফিল গত ৪ অক্টোবর চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন, নাগরিক স্মরণসভা বাস্তবায়ন কমিটির আহ্‌বায়ক অ্যাডভোকেট লায়ন আলহাজ মোহাম্মদ সলিমুল্লাহ। বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক অধ্যাপক আ.ন.ম আবদুল মোক্তাদির, চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবি সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট এ.এম. আনোয়ারুল কবির, সোনালী ব্যাংকের জি.এম আবুল কালাম আজাদ, জনতা ব্যাংকের সাবেক ডি.জি.এম আবুল কাসেম, সন্দ্বীপ এসোসিয়েশন চট্টগ্রামের সাবেক সভাপতি এনায়েত উল্লাহ, সন্দ্বীপ এসোসিয়েশন চট্টগ্রামের সাবেক আহ্‌বায়ক জাহাঙ্গীর আলম, চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের সহযোগী অধ্যাপক ডা. রফিকুল মাওলা, আইনজীবী মো: ইমলাক ও সেকান্দর বাদশা। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

x