নগরীর একাংশে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ

আজাদী প্রতিবেদন

রবিবার , ১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ at ৭:৫২ পূর্বাহ্ণ

 

 

নগরীর পতেঙ্গা এলাকায় সিইপিজেডের দক্ষিণে মাইটেল্ল্যা খালের দুই পাশে রিটেইনিং ওয়ালের কাজ করার সময় গ্যাসের পাইপলাইন ফেটে যাওয়ার কারণে নগরীর বেশ কিছু এলাকায় গ্যাস সংযোগ বন্ধ রয়েছে। গতকাল সকালে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন ইপিজেডের পেছনের আকমল আলী রোড খালের দুই পাশে ওয়ালের কাজ করার কর্ণফুলী গ্যাসের ২৪ ইঞ্চি ব্যাসের উচ্চ চাপ বিশিষ্ট রিং মেইন গ্যাস পাইপ লাইন ফেটে যায়। এসময় প্রচণ্ড বেগে গ্যাস নির্গত হতে থাকলে কেজিডিসিএল কর্তৃপক্ষ ইপিজেডসহ বন্দরপতেঙ্গা, হালিশহর, আগ্রাবাদ এবং সদরঘাট এলাকায় গ্যাস সংযোগ বন্ধ করে দেয়। পরে নগরীর সদরঘাট, পাথরঘাটা, আন্দরকিল্লা, মোমিন রোড, সিরাজুদ্দৌল্লা রোডসহ আশেপাশের এলাকায়ও গ্যাস সরবরাহ বন্ধ হয়ে যায়। এতে করে চরম দুর্ভোগে পড়েন নগরবাসী। হটাৎ গ্যাস সরবরাহ গ্যাস বন্ধ হয়ে যাওয়ায় বাসাবাড়িতে বন্ধ হয়ে রান্নাবান্নার কাজ। দীর্ঘক্ষণ অপক্ষোর পরও ঘ্যাস না আসায় ভিড় বাড়ে খাবারের দোকানগুলোতে। রাতেও গ্যাস সরবরাহ স্বাভাবিক না হওয়ায় দুর্ভোগের মাত্রা আরো বাড়ে।

জানা গেছে, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নগরীর ইপিজেডের পেছনের মাইট্টান্না খালের ভিতরে রিটেইনিং ওয়াল নির্মানের কাজ করছে। খালের প্রায় ১৪ ফুট গভীর থেকে তোলা রিটেইনিং ওয়াল নির্মাণের জন্য পাইলিং এর কাজ করা হচ্ছিল। গতকাল দুপুরে পাইলিং করার সময় খালের ভিতর মাটির নিচ দিয়ে যাওয়া কর্ণফুলী গ্যাসের হাই প্রেসার লাইন ফেটে যায়। এরপর থেকে সারাদিন কর্ণফুলী ইপিজেড, চট্টগ্রাম ইপিজিডের অনেক কারখানার উৎপাদন বন্ধ হয়ে পড়ে। বন্ধ হয়ে যায় বাসাবাড়ির রান্নাবান্না। সিটি কর্পোরেশনের প্রকৌশল বিভাগের কাজ শেষ না হওয়ায় সারাদিন কর্ণফুলী গ্যাস কোম্পানীও ফেটে যাওয়া গ্যাস লাইন মেরামত করতে পারেনি। র্কণফুলী গ্যাসের সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলী জানান, সিটি কর্পোরেশন খালের মাটি সরিয়ে নিলে ফেটে যাওয়া গ্যাস লাইনের কাজ সংস্কার করে পুনরায় সংযোগ দেয়া হবে।

এ ব্যাপারে র্কণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশান কোম্পানী লিমিটেডের ম্যানেজার (কাস্টমার অ্যান্ড মেইনটেনেন্স) প্রকৌশলী অনুপম দত্ত আজাদীকে জানান, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন সিমেন্ট ক্রসিংয়ের পশ্চিম পাশে আকমল আলী রোডে একটি খাল থেকে মাটি তোলার সময় গ্যাসের হাই প্রেসার লাইন ফেটে গেছে। সকাল ৮টায় লাইন ফেটে গেলেও আমরা বিকাল ৪টায় গ্যাস বন্ধ করেছি। এর ফলে দুটো ইপিজেডসহ পুরো পতেঙ্গা এলাকায়, হালিশহর, আগ্রাবাদ এবং সদরঘাট এলাকায় গ্যাস সংযোগ বন্ধ রয়েছে। কিন্তু সিটি কর্পোরেশন খাল থেকে মাটি না সরানো পর্যন্ত কাজ করা যাচ্ছেনা। সিটি কর্পোরেশনের কাজ শেষ হলে আমরা কাজ শুরু করবো। আমাদের টিম প্রস্তুত আছে।

কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির অন্য একজন কর্মকর্তা জানান, সিটি কর্পোরেশন ওখানে কাজ করার ব্যাপারে আমাদের আগাম কিছু জানায়নি। কোন সতর্কতামূলক ব্যবস্থাও গ্রহণ করা হয়নি। পাইলিং রিগের আঘাতে ২৪ ইঞ্চি ব্যাসের বিশাল পাইপটি ফেটে যায়। এতে হু হু করে গ্যাস বের হতে থাকে। খবর পেয়ে কর্ণফুলী গ্যাসের প্রকৌশলীরা ঘটনাস্থলে যান। কিন্তু খালের পানির নিচে মাটির অনেক গভীরে থাকা পাইপটির ফাটল বন্ধ না করা পর্যন্ত গ্যাস বের হওয়া বন্ধ করা সম্ভব হচ্ছিল না। অপরদিকে পানির তলায় কাজ করাও অসম্ভব হয়ে উঠে। কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির নিকট ইকুইপমেন্ট না থাকায় কাজ চালানো সম্ভব হচ্ছিল না। কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির প্রকৌশলীরা শহরের একটি বিস্তৃত এলাকার গ্যাস সরবরাহের প্রধান লাইনটির বাল্ব বন্ধ করে দেয়া হয়। পুরো লাইনটিকে করা হয় গ্যাস শূন্য। সিটি কর্পোরেশন থেকে আনা হয় স্কেভেটর। খালের দুই দিকে বাঁধ দিয়ে শুরু করা হয় পানির সেচের কাজ। আজ সকাল থেকে মাটি কেটে গ্যাসের পাইপ বের করে ফাটলের জায়গা জোড়া দেয়া হবে। সবকিছু ঠিক থাকার পরই শুরু করা হবে গ্যাস সরবরাহ। পাইপ লাইন ঠিক না হওয়া পর্যন্ত চট্টগ্রাম ইপিজেড, কর্ণফুলী ইপিজডেড, পতেঙ্গা হালিশহরসহ বিস্তৃত এলাকার গ্যাস সরবরাহ পুরোপুরি বন্ধ থাকবে।

কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার খায়ের আহমদ মজুমদারের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি লাইন ফেটে যাওয়ায় এলাকায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকার কথা স্বীকার করে বলেন, যত দ্রুত সম্ভব গ্যাস সরবরাহ শুরু করার জন্য প্রকৌশলীরা কাজ করছেন। এ ব্যাপারে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী আবু ছালেহ আজাদীকে জানান, এই খালের নিচ দিয়ে যে গ্যাসের পাইপ লাইন নিয়ে যাওয়া হয়েছে তার কোন চিহৃ নেই। নিয়ম হচ্ছে খালের ২০ ফুট গভীর দিয়ে পাইপ লাইন নিয়ে যাওয়া। কিন্ত কর্ণফুলী গ্যাস কোম্পানি পাইপ লাইন নিয়ে গেছে ১০ ফুট দিয়ে। আমাদের লোক সারারাত কাজ করবে। সকালের মধ্যে আমরা মাটি সরিয়ে দেবো। আমাদের ১৩ ফুটের মতো মাটি সরিয়ে দিতে বলেছে। তারপর কর্ণফুলী গ্যাসের লোক তাদের কাজ শুরু করবে। যেখানে লিকেজ হয়েছে সেখানে তারা ওয়ারিং করে দেবে।

x