এক স্ত্রী রেখে আরেক স্ত্রী অতঃপর…

আজাদী প্রতিবেদন

সোমবার , ১৪ অক্টোবর, ২০১৯ at ৩:১৫ পূর্বাহ্ণ

এক স্ত্রী থাকাবস্থায় দ্বিতীয় স্ত্রী গ্রহণের অপরাধে এক ব্যক্তিকে সাজা প্রদান করেছেন আদালতের বিচারক। মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট ৬ষ্ঠ আদালতের বিচারক মেহনাজ রহমান এ সাজা দিয়েছেন। একইসাথে তাকে আর্থিক জরিমানাও করেছেন আদালতের বিচারক। সাজাপ্রাপ্ত আসামী কক্সবাজার জেলার উখিয়া থানাধীন রত্না পালং মাস্টার বাড়ি এলাকার সামশু উদ্দিন মাহমুদের পুত্র আহসান উদ্দিন মাহমুদ। আদালত তাকে ১ বছর কারাদন্ড এবং ১০ হাজার টাকার অর্থদন্ড, অনাদায়ে আরও ২ মাসের কারাদন্ড প্রদান করেন। বাদীনির অভিযোগে প্রকাশ, বাদী সুমি আক্তার (ছদ্মনাম) এ আসামীর বিরুদ্ধে গত ২০১৫ সালের ১৪ মার্চ মুসলিম পারিবারিক আইন অধ্যাদেশ ১৯৬১ এর ৬(৫)/খ ধারায় চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এ মামলা করেন। পরে মামলাটি বিচার নিষ্পত্তির জন্য মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট ৬ষ্ঠ আদালত মেহনাজ রহমানের আদালতে বদলি হয়। আদালত মুসলিম পারিবারিক আইন অধ্যাদেশ ১৯৬১ এর ৬(৫)/খ ধারার অপরাধে আসামীর বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেন। পরবর্তীতে সাক্ষীর জেরা, জবানবন্দি,সাফাই সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে যুক্তিতর্ক শুনানীর পর গতকাল এ রায় ঘোষণা করা হয়। রায়ে এক স্ত্রী বহাল থাকাবস্থায় দ্বিতীয় স্ত্রী গ্রহণের অপরাধে আসামী আহসান উদ্দিন মাহমুদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় আসামীকে উল্লেখিত সাজা ও জরিমানা করা হয়। রায়ের সময় আসামী আদালতে হাজির না থাকায় গ্রেফতার হওয়ার দিন থেকে কিংবা স্বেচ্ছায় আত্মসমর্পনের তারিখ থেকে সাজা কার্যকর হবে। বাদী পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন অ্যাডভোকেট এ.এম জিয়া হাবীব আহসান।

x