আনন্দী

শনিবার , ২৬ অক্টোবর, ২০১৯ at ৮:৩১ পূর্বাহ্ণ
44

কয়েক মাস আগে আমি জি ফাইভ ওয়েবে আনন্দী গোপাল নামক একটি সিনেমা দেখি। সিনেমাটি নির্মিত হয়েছে আনন্দী গোপালরাও জোশী নামের এক মহিলার জীবনকে কেন্দ্র করে। তিনি ভারতের প্রথম মহিলা চিকিৎসক। গোপালরাও নামটি তাঁর স্বামী গোপালরাও এর নাম থেকে এসেছে।
আনন্দী গোপালরাও জোশী জন্মগ্রহণ করেন ১৮৬৫ সালের ৩১ মার্চ, মহারাষ্ট্রের থানে জেলার কল্যান নামক শহরে। নয় বছর বয়সে আনন্দীর বিবাহ হয় বিপত্নীক গোপালরাও জোশীর সাথে, যিনি বয়সে আনন্দীর থেকে ২০ বছরের বড়।
আনন্দীর জীবনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন তাঁর স্বামী গোপালরাও জোশী। সময়ের চেয়ে অগ্রসর গোপাল চাইতেন তাঁর স্ত্রী শিক্ষিত হোক। তাঁরই ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় আনন্দীর পড়াশোনা শুরু হয়। তিনি এ ব্যপারে এতটাই কড়া ছিলেন যে, সামান্য ফাঁকিবাজি তাঁর মাথায় আগুন ধরিয়ে দিত এবং কড়া শাসনে তিনি আনন্দীকে সন্ত্রস্ত রাখতেন। গোপালরাও স্ত্রীর পড়াশোনায় এতটাই জোর দিতেন যে পড়াশোনা বাদে ঘরকন্নার কাজ করতে দেখলে রাগের বশে প্রহার করতে উদ্যত হতেন।
১৪ বছর বয়সে তিনি পুত্র সন্তানের জন্ম দেন, কিন্তু চিকিৎসার অভাবে শিশুটি ১০ দিন পরেই মৃত্যুবরণ করে। এই ঘটনা আনন্দীর জীবনে প্রভাব ফেলে এবং চিকিৎসক হবার জন্য অনুপ্রেরণা জোগায়।
আনন্দী কোলকাতা থেকে জাহাজে করে নিউইয়র্ক- এ যান এবং পেনসিলভানিয়ায় মহিলা মেডিকেল কলেজে ভর্তির আবেদন করে ভর্তি হন। তখন তিনি ১৯ বছর বয়স্কা ছিলেন।
আমেরিকায় থাকাকালীন তিনি টিবি রোগে আক্রান্ত হন এবং ১৮৮৭ সালের ২৬ শে ফেব্রুয়ারি মৃত্যুবরণ করেন।
তিনি কীভাবে চিকিৎসক হবার এই পথ অতিক্রম করেন ও সফল হন তাই নিয়েই নির্মিত মারাঠি ভাষার এই মুভি।

x