হাইহিল ব্যবহারে শারীরিক সমস্যা

মো. মুজিবুল হক শ্যামল

শনিবার , ১৮ আগস্ট, ২০১৮ at ৮:৪২ পূর্বাহ্ণ
46

হাইহিল জুতা ব্যবহারে সর্তক থাকুন যুবতী ও মহিলারা। এই জুতা দেখতে আকর্ষনীয় ও সুন্দর হলেও এর অনেক শারীরিক ক্ষতিকর দিক রয়েছে। বাজারে দুই ধরনের হিল জুতা দেখতে পাওয়া যায়, পেন্সিল হিল এবং বক্স হিল জুতা। অনেকে আবার বলেন পেন্সিল হিল শরীরের জন্য ক্ষতি হলেও বক্স হিল তেমন ক্ষতিকর না, কিন্তু যেকোনো হিল জুতাই স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। হিল জুতা ফ্যাশন সচেতন নারীদের প্রাত্যহিক জীবনের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে জড়িত। আজকাল মেয়েরা ফ্যাশন নিয়ে প্রচুর পরীক্ষানিরীক্ষা করেন, পোশাকের সঙ্গে মানানসই হাইহিল জুতা তাদের চাইচাই। র‌্যাম্প মডেল থেকে শুরু করে সাধারণ মেয়েসহ সবাই পরেন এই হাইহিল। মেয়েদের সৌন্দর্যের অন্যতম মাপকাঠি হিসেবে উচ্চতাকে ধরা হয়। তাই জুতার হিলের চাহিদাও বেড়ে গেছে দ্বিগুণভাবে। কিন্তু সৌন্দর্যবর্ধক এই নিরীহ বস্তুটি হাঁটু এবং পায়ের মারাত্নক ক্ষতি করতে পা্‌ের। ইদানিং এসমস্যা নিয়ে থেরাপি বা ডাক্তারের কাছে অল্প বয়সি রোগী আসছেন। তাদের অনেকেই আসছেন গোড়ালি বা হাঁটুর ব্যথা নিয়ে। ইতিহাস জেনে দেখা যায়, সব অসুবিধার মূলে এই জুতার হিল। অস্বাভাবিক উচু হিল পরায় গোড়ালি উচু হয়ে থাকে। যখনতখন অনিয়ন্ত্রিতভাবে এদিকসেদিক বেকে যায় পা। ফলে হাটুতে অস্বাভাবিক চাপ পড়ে। ক্ষয় হয়ে যাচ্ছে হাঁটুর মালইঢাকির পেছনের কার্টিলেজ। এর কারনে অল্প বয়সেই অস্টিওআর্থ্রাইটিস দেখা দিচ্ছে। গবেষণায় দেখা গেছে গোড়ালি, হাঁটু ও কোমর ঠিক রাখতে মেয়েদের জন্য জুতা বা ব্যাকস্ট্রাপ দেওয়া কম হিলের জুতা সব থেকে ভালো। হিল পরার ইচ্ছা হতেই পারে। কিন্তু প্রতিদিনের জীবনে হাঁটাহাঁটির ক্ষেত্রে সামান্য উচু বা ফ্ল্যাট জুতাই ভালো। কারন শারীরিক সুস্থ্যতা না থাকলে সৌন্দর্য অধরাই থেকে যাবে। সুতরাং হাইহিল ব্যবহারে একটু সাবধান থাকুন। আসুন জেনে নিই নিয়মিত হাইহিল ব্যবহারে কী কী ক্ষতি হতে পারে

পায়ের ছোট ছোট জয়েন্টে ব্যথা: অন্যান্য জুতার মতো হাইহিল জুতার কোনো অভিঘাত শোষণ তরার ক্ষমতা থাকে না। তাছাড়া চলার সময় শুধু সামনের দিকে ছাড়া পায়ের পাশের দিকটা আড়ষ্ট করে দেয় হাইহিল জুতা। ফলে পা শুধু সোজা রাখা যায়। তাই পদক্ষেপের সব আঘাত এসে পড়ে হাঁটুর ওপর। এর থেকেই শুরু পায়ের ছোট ছোট জয়েন্টের ব্যথা এবং আর্থ্রাইটিসের সমস্যা। তবে হিলের কারনে শুধু হাঁটুর ওপর নয়, গোড়ালির ওপরও অতিরিক্ত চাপ পড়ে। কাজেই সারাদিন হাইহিল পরে কাটানোর পর পায়ের প্রতিটি জয়েন্টে ব্যথা হওয়াটাই স্বাভাবিক।

হাঁটু ব্যথা: সামনে চাপ পড়ার কারনে সরাসরি হাঁটুতে চাপ, ব্যবহারে আপনার হাঁটু ব্যথার উৎপত্তি শুরু হতে পারে। তাই হিল ব্যবহারে সতর্ক থাকুন।

পায়ের পেশির ব্যথা: এটা হিল জুতার পরার সব থেকে খারাপ দিক, দীর্ঘ সময় ধরে হিল জুতা ব্যবহার করলে গোড়ালি অনেকটা উচু হয়ে থাকে। ফলে গোড়ালির সঙ্গে যে পেশিগুলো টেনডনের মাধ্যমে যুক্ত এরা ছোট হয়ে যায় এবং পেশিগুলোর ভেতরে নানা পরিবতিত হতে শুরু করে। ফলে প্লান্টার ফ্যাসাইটিস এবং একিয়ালিস টেন্ডিনাইটিস নামে রোগ দেখা দিতে পারে।

কোমরে ব্যথা: হাইহিল জুতা আপনার গোড়ালিকে উঁচু রেখে কোমরকে অস্বাভাবিকভাবে সামনে ঠেলে রাখে। প্রকৃতির নিয়মের বিপরীতে দীর্ঘদিন ধরে এমন অস্বাভাবিক ভঙ্গিতে হাঁটাচলার কারনে মেরুদন্ডে স্বাভাবিক বক্রতা নষ্ট হয়ে কোমরে প্রচন্ড ব্যথার সৃষ্টি হতে পারে। এই ব্যথা থেকে আর বড় রকমের ব্যথা হয়ে থাকে কোমরে। এটি ছাড়াও আরো হরেক রকমের শারীরিক সমস্যা হয় হিল জুতা ব্যবহারে।

x