স্বাক্ষর জালিয়াতির মামলায় মহিলা কারাগারে

আজাদী প্রতিবেদন

বৃহস্পতিবার , ১৪ মার্চ, ২০১৯ at ৬:৪৫ পূর্বাহ্ণ
59

স্বাক্ষর জালিয়াতি করে প্রতারণার মাধ্যমে ব্যাংক থেকে টাকা উত্তোলন চেষ্টার ঘটনায় দায়ের করা মামলায় হোসনে আরা বেগম পারুল নামে এক মহিলাকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। গতকাল বুধবার মহানগর হাকিম শফি উদ্দিনের আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করলে আদালত শুনানি শেষে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। পারুল চট্টগ্রাম জেলার মীরসরাই উপজেলার মিঠানালা গ্রামের মৃত নিজামুদ্দৌলার মেয়ে বলে জানা গেছে। তিনি আ. লীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত আছেন বলে সূত্র নিশ্চিত করেছে।
বাদী পক্ষের আইনজীবী এডভোকেট আবু আবদুল্লাহ আল হেলাল বলেন, মামলার বাদি রাকিবুল ইসলাম ইসলামী ব্যাংক বারইয়ারহাট শাখায় একটি সঞ্চয়ী হিসাব নম্বর খুলেন। ২০১৬ সালে তার চেক বই হারিয়ে ফেলেন। তিনি ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে ২০১৬ সালের ২০ মার্চ লিখিতভাবে বিষয়টি অবহিত করেন। একই ঘটনায় ২০১৬ সালের ৩০ মার্চ তিনি মিরসরাই থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।
এর প্রায় একবছর পর ২০১৭ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি সকালে আসামি হোসনে আরা বেগম পারুল ইসলামী ব্যাংক সিডিএ শাখা থেকে স্বাক্ষর জালিয়তি করে ২৮ লাখ টাকা উত্তোলনের সময় সন্দেহ হলে ইসলামী ব্যাংক বারইয়ারহাট শাখার কর্মকর্তা মো. কবির উদ্দিন বাদিকে ফোন করে বিষয়টি জানান। তিনি কাউকে চেক প্রদান করেনি এবং তার চেকবই হারানোর ঘটনার বিস্তারিত ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে অবহিত করেন। এই ঘটনার পর তিনি ইসলামী ব্যাংক সিডিএ এভিনিউ শাখায় যোগাযোগ করলে সেখানে টাকা উত্তোলনের জন্য ইস্যুকৃত চেকের স্বাক্ষরের সাথে তার স্বাক্ষরের কোন মিল নেই। একটি জালিয়াত ও প্রতারক চক্র রাকিবুল ইসলামের টাকা আত্মসাতের চেষ্টা করেছে বলে উপস্থিত সকলের কাছে প্রমাণিত হয়। এই ঘটনায় গত বছরের ২১ মে হোসনে আরা বেগম পারুল এবং ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেডের ভিপি এবং সিডিএ এভিনিউ শাখার প্রধান মো. আবুল কালাম আজাদকে আসামি করে মহানগর মুখ্য হাকিম আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন রাকিবুল ইসলাম। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) কে তদন্ত করার নির্দেশ দেন। মামলাটি তদন্ত করে ঘটনার সাথে আসামির সংশ্লিষ্টতা উল্লেখ করে গত বছরের ২৪ অক্টোবর আদালতে প্রতিবেদন জমা দেন উপ পুলিশ পরিদর্শক মো. জসিম উদ্দিন।
এই মামলার প্রধান আসামি হোসনে আরা পারুল দীর্ঘদিন পলাতক থাকার পর আজ আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করলে আদালত তাকে কারাগারে প্রেরণের আদেশ দেন।

x