সৈয়দা আইরিন পারভীন (একটা ইলিশের বিনিময়ে)

শনিবার , ১৩ এপ্রিল, ২০১৯ at ১০:২৯ পূর্বাহ্ণ
101

দিন না আপনার একটা ইলিশ মাছের টাকা বাংলাদেশের ক্যানসার হাসপাতালগুলোতে। এতে আমেনা, রফিক, রহমান এই ধরনের অনেকে অন্তত আরো কিছুদিন পৃথিবীর আলো দেখতে পাবে। একটা কেমো থেরাপির টাকা জোগাড় করতে গিয়ে গরিব লোকদের যে কত কষ্ট হয় তা না দেখলেই নয়। অনেক ব্যয়বহুল চিকিৎসা ক্যানসার। কিন্তু তারপরও এর নাই কোন উত্তর। আবার চিকিৎসা না করেও থাকা যায় না। সরকারিভাবেও তেমন সাহায্য সহযোগিতা পাওয়া যায় না। তদুপরি বাংলাদেশে দুই কোটিরও বেশি লোক কোন না কোনভাবে কিডনি রোগে আক্রান্ত। প্রায় চল্লিশ লাখ লোক অকাল মৃত্যুবরণ করে কিডনি বিকল হয়ে। কিডনি বিকলের চিকিৎসা প্রধানত দুই ধরনের কিডনি সংযোজন ও ডায়লাইসিস। এবং দুটোয় অনেক ব্যয়সাপেক্ষ। ডায়লাইসিস সপ্তাহে দুই থেকে তিন বার করতে হয়। প্রতিবারই পাঁচ থেকে সাত হাজার টাকা খরচ পড়ে। একজন মধ্যবিত্ত ও নিম্নবিত্ত এই ব্যয়ভার বহন করা সম্ভব নয় এমনি সরকারি সাহায্য নাই। অতএব রোগী মরে যাওয়া ছাড়া কোন উপায় নেই। অন্যদিকে এইডস এর ক্ষেত্রে সরকার ঔষধপত্র বিনামূল্যে দিলেও অন্যান্য জটিলতা হিসাবে যে সমস্ত সমস্যা দেখা যায় তা অনেক ব্যয়বহুল। শরীরে রোগ প্রতিরোধক শক্তি না থাকার কারণে তাদের সবসময় পেটের পীড়া, সর্দি কাশি লেগেই থাকে। সমাজে যাদের এই ধরনের রোগগুলো হয় তাদের জন্য আমার অনেক কষ্ট হয়। অনেক শিক্ষিত লোক কিন্তু টাকার অভাবে চিকিৎসা করতে পারছে না। আমি তা খুব বুঝতে পেরেছি আমার বন্ধু ডা. শাহানার ক্যানসারের টাকা জোগাড় করতে গিয়ে। সমাজের কত বড় বড় উঁচু তলার মানুষদের কাছে গিয়েছি কিন্তু সাহায্যের হাত নাই। হয়তো কেউ বলেছেন কাল আসেন। অন্যজন বলেছেন স্যার অফিসে নেই। আমি, লোকমান, রহমান, জয়িতা চেষ্টার মনে হয় কোন বাকি রাখিনি।অথচ ডা. শাহানা তার নিপুণ হাতে কত মায়ের রাত জেগে নরমাল ডেলিভারি করেছে। এমন কি বাড়িতে ডেলিভারি করতে গিয়ে যখন মহিলার জটিল সমস্যা হয় তখন শাহানা তা চিকিৎসার মাধ্যমে তার সুখী দাম্পত্য জীবন ফেরত দিয়েছে। কিন্তু কি লাভ? শাহানার জন্য কেউ একটা টাকা নিয়ে এগিয়ে আসেনি। যাক বন্ধু তুমি চলে গিয়ে মনে হয় আমাদের বাঁচিয়ে দিয়েছো। লেখাটা লিখতে গিয়ে হাত যেন ধরে আসছিল। বারে বারে মোবাইলটা যেন চোখের জলে ভিজে যাচ্ছিল। আল্লাহর দুনিয়ায় কিছু মানুষ খুব কষ্ট করে আর কিছু অবিরত সুখ। সত্যি বলছি যাদের পরিবারে একটা ক্যানসার এইডস বা কিডনি রোগী আছে তাদের মত কষ্ট যেন পৃথিবীতে আর দ্বিতীয় জন নেই। আসুন না আমরা একটু আর্থিক বা মানসিক সহযোগিতা করি। অন্তত একটা ইলিশের বিনিময়েই না হয় হোক।

x