সর্বজনীন

অনুপা দেওয়ানজী

মঙ্গলবার , ৮ অক্টোবর, ২০১৯ at ৬:০৯ পূর্বাহ্ণ
68

দেখতে গেলাম মায়ের পুজো হচ্ছে পুজো সর্বজনীন! ঢ্যাম কুড় কুড় বাদ্যি বাজে পুজো মানে খুশিরই দিন। মণ্ডপেতে গিয়ে দেখি শতচ্ছিন্ন কাপড় গায়ে, বসে যত দুঃখিনী মা, ভিক্ষাপাত্র হাতে নিয়ে। এসব মা’দের পয়সা ছুঁড়ে দিচ্ছে বা কেউ দয়া করে / কেউ বা তাদের ছোঁয়া থেকে যাচ্ছে খানিক তফাৎ সরে। দুর্গা মাকে তারাই আবার দিচ্ছে কাপড়, সোনা দানা। দিচ্ছে বা কেউ দেদার টাকা হিসেব যে আজ করতে মানা! লোকে লোকে লোকারণ্য। দীপের আলো, ধূপের ধোঁয়া, উলুধ্বনি, শঙ্খরবে চাই যে মায়ের চরণ ছোঁয়া। বৃদ্ধাশ্রমে যে মায়েরা ছেলের কথাই ভাবেন রোজ। আজকে মায়ের পুজোর দিনে ছেলেরা কি নিচ্ছে খোঁজ? ঢ্যাম কুড় কুড় বাদ্যি বাজে সর্বজনীন মানে সবার। সর্বজনের সাধ্যি কোথায়! দুর্গা মায়ের কাছে যাবার! খানিক দূরেই পতিত পাড়া দুটোর তফাৎ রাত্তির ও দিন। মনুষ্যত্বের ডঙ্কা বটে ওরা কিন্তু সর্বজনীন। ওই পাড়াটির মাটি ছাড়া হয় না পুজো দুর্গা মায়ের। তাই কি পুজো সর্বজনীন! জবাব খুঁজে পাচ্ছি না এর। মায়ের পুজোয় এসব দুঃখী মাদের জন্যে কে ভাবছে? মৃন্ময়ী মা তোকে যে আজ মা ডাকতে বুক ফাটছে।

x