রোহিঙ্গাদের জন্য আমিরাতের ১৮ মিলিয়ন ডলার সংগ্রহ

মঙ্গলবার , ১১ জুন, ২০১৯ at ১১:০৮ পূর্বাহ্ণ
29

রোহিঙ্গাদের জন্য ১৮ মিলিয়ন ডলারের তহবিল সংগ্রহ করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত। এমিরেটস রেড ক্রিসেন্ট কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের জন্য এ তহবিল সংগ্রহ করা হয়েছে। দেশব্যাপী সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন মাধ্যমে প্রচরণা চালানোর পর বিভিন্ন ব্যক্তি ও দাতব্য প্রতিষ্ঠান এ অর্থ দিয়েছে। গতকাল সোমবার সংযুক্ত আরব আমিরাত দূতাবাস এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ খবর জানিয়েছে। খবর বাংলানিউজের।
এতে বলা হয়েছে, সংযুক্ত আরব আমিরাতের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের সহায়তায় ও দেশটির প্রেসিডেন্ট শেখ খলিফা বিন জায়েদ আল নাহিয়ানের নির্দেশে এমিরেটস রেড ক্রিসেন্ট কর্তৃপক্ষ এ ক্যাম্পেইন শুরু করেছিল। আবুধাবি আল-আইন অঞ্চলের শাসক প্রতিনিধি শেখ তাহনোন বিন মোহাম্মদ আল নাহিয়ান এ তহবিলে দিয়েছেন ১ দশমিক ৩৬ মিলিয়ন ডলার। তার স্ত্রী শেখা শামসা বিন জায়েদ আল নাহিয়ানও তহবিলে অর্থ সহায়তা দিয়েছেন। এ বিষয়ে বাংলাদেশে নিযুক্ত সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাষ্ট্রদূত সৈয়দ মোহাম্মদ আল মেহেরী বলেন, এ পর্যন্ত বাংলাদেশ এক মিলিয়ন (১০ লাখ) উদ্বাস্তুকে আশ্রয় দিয়েছে। নারী ও শিশুদেরকে সহায়তা করার উদ্দেশ্যে আমাদের সরকার রোহিঙ্গাদের সাহায্যে অংশ নিতে এবং তাদের দান করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তিনি আরো বলেন, রোহিঙ্গাদের বিশুদ্ধ পানি, ওষুধ, প্লাস্টিক শিট ও অস্থায়ী বাড়ি নির্মাণ ও খাদ্য সহায়তা দিয়ে আমরা বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির সঙ্গে যোগাযোগ করছি। রাষ্ট্রদূত বলেন, আমরা গর্ববোধ করি যে সংযুক্ত আরব আমিরাতই প্রথম ইউএনএইচসিআর-এর সহায়তায় বাংলাদেশে রোহিঙ্গা নারী ও শিশুদের জন্য মানবিক উদ্যোগ নিয়েছে। দেশে রোহিঙ্গা সংকট শুরু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই সংযুক্ত আরব আমিরাত নারী ও শিশুদের জরুরি ত্রাণ হিসেবে খাদ্য, আশ্রয় কেন্দ্র, স্বাস্থ্যসেবা দিয়েছে।
২০১৮ সালে রোহিঙ্গাদের ২৪ ঘণ্টা স্বাস্থ্যসেবা দিতে কঙবাজারে ইউএই-বাংলাদেশ ভলান্টিয়ার ফিল্ড হসপিটাল করে প্রথম কোনো আরব দেশ।
ঢাকায় অবস্থিত সংযুক্ত আরব আমিরাত দূতাবাস রোহিঙ্গা সংকটের শুরু থেকেই সব ত্রাণ কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ করছে।

x