মাছরুর চৌধুরী (বাবা)

বৃহস্পতিবার , ৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ at ৬:২৯ পূর্বাহ্ণ
31

কেমন আছো? বহুকাল আগে তুমি বিদায় নিয়েছ এ জগন্নাথ থেকে। মাঝে মাঝে তোমাকে দেখার জন্য নিজের মাঝে নিশপিশে বেদনা অনুভব হয়। প্রচ্ছন্ন কষ্টগুলো আমি প্রকাশ করতে পারি না। আমি নাকি অনেক বড় হয়ে গেছি।তাই বুঝি আমাকে অনেক কিছু মানায় না।এটা কেমন মানুষের প্রজ্ঞাচক্ষু যে,তোমাকে মনে করাটা এই বয়সে চম্পট হয়ে যাবে!! তোমার কথা মনে পড়ার বেদনায় কাজের ফাঁকে কিঞ্চিৎমাত্র সময় বের করি।তোমার কোঁকড়া চুলের সাজানো ভাজটা কি মা করে দিত জানি না।তবে তুমি যখন দু আঙুলের ফাঁকে সিগারেট টানতে,তখন মাকে পাশে বসতে দেখেছি।সিগারেটটি নিপাতন করতে তোমার সাথে বেশ হাতাহাতি হত।সবশেষে তুমিই জিতে যেতে।বেশ পুরুষালী ভাব নিয়ে সিগারেট টানতে টানতে আকাশের দিকে ধোঁয়া ছাড়তে।আর সে কলাকৌশলে জিতে যাওয়াটা তোমার মস্তবড় ভুল। অতিরিক্ত সিগারেটের আসক্ততা তোমাকে ওপারে যাবার পথ সুগম করে দেয়। সেখানে কেমন আছ জানি না। তবে মনে হয়, পশ্চাতে তোমার সিগারেটের ধোঁয়াটা কল্পনাতে বার বার ফিরে আসে গোলাপজলের ঘ্রাণে জলীয়বাষ্প হয়ে। ভাল থেকো তুমি প্রতি নিশিদিন।

x