মহেশখালীতে পুলিশ-সন্ত্রাসী গোলাগুলি, অস্ত্র উদ্ধার, গ্রেপ্তার ১

মহেশখালী প্রতিনিধি

বৃহস্পতিবার , ১১ অক্টোবর, ২০১৮ at ১২:১৩ অপরাহ্ণ
21

মহেশখালীর হোয়ানকের পাহাড়ি এলাকায় গভীর রাতে অস্ত্র উদ্ধার ও আসামি গ্রেপ্তার করতে গিয়ে পুলিশের সাথে সন্ত্রাসীদের গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এসময় পুলিশ মোঃ ইউনুস (৫০) নামের এক সন্ত্রাসীকে আটক করে। পরে তার স্বীকারোক্তি মতে, ৩টি দেশীয় তৈরি বন্দুক ও ১০ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করা হয়। গতকাল ১০ অক্টোবর ভোরে উপজেলার হোয়ানক ইউনিয়নের পূর্ব পূঁইছড়া গ্রামের লাল মোহাম্মদ ফকিরের কাটা নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। গ্রেপ্তারকৃত সন্ত্রাসী ইউনুস উক্ত গ্রামের মৃত লাল মোহাম্মদ ফকিরের পুত্র।
মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ প্রদীপ কুমার দাশ জানান, বুধবার ভোর রাতে থানার এস আই রাজু আহমদ গাজী ও এস আই দীপক বিশ্বাস এর নেতৃত্বে একদল পুলিশ উপজেলার হোয়ানক ইউপিস্থ পূঁইছড়া পাহাড়ি এলাকার লাল মোহাম্মদ ফকিরের কাটা নামক এলাকায় অভিযান চালিয়ে ওই এলাকার শীর্ষ সন্ত্রাসী মোঃ ইউনুসকে (৫০) গ্রেপ্তার করে। পরে তার স্বীকারোক্তি মতে নিজের দখলে থাকা ৩টি দেশীয় তৈরি বন্দুক ও ১০ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করে। পুলিশ জানায়, তাকে ধরতে গেলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে তার সঙ্গীয় সন্ত্রাসীরা পাহাড়ের আড়াল থেকে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়ে। পুলিশও জান মাল রক্ষার্থে পাল্টা ২০ রাউন্ড গুলি ছুঁড়ে। এক পর্যায়ে গুলিবর্ষণকারী সন্ত্রাসীরা পিছু হটলে ইউনুস ধরা পড়ে। ইউনুসের বিরুদ্ধে হত্যা, ডাকাতি, পুলিশ এসল্ট, মাদক, অস্ত্র আইন ও মারামারি সহ ৬টি মামলা রয়েছে। সে ওই এলাকার চিহ্নিত অস্ত্রধারী ও সন্ত্রাসী। তাদের অত্যাচারে এলাকার লোকজন পাহাড়ি জায়গা জমি ও পান বরজ ভোগ করতে পারে না বলে এলাকাবাসীর অভিযোগ রয়েছে।

x