ভ্রমণ বিষয়ক অনলাইন পোর্টাল ‘ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রাম’-এর আনুষ্ঠানিক যাত্রা

বৃহস্পতিবার , ২৫ অক্টোবর, ২০১৮ at ১১:০৩ অপরাহ্ণ
75

চট্টগ্রাম থেকে ভ্রমণ বিষয়ক প্রথম অনলাইন পোর্টাল ‘ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রাম’-এর আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার (২৫ অক্টোবর) বিকেলে চট্টগ্রাম জেলা শিল্পকলা একাডেমির আর্ট গ্যালারিতে ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রাম-এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

‘আপনার প্রতিদিনের ভ্রমণ সঙ্গী’ এই স্লোগান নিয়ে যাত্রা শুরু করে অনলাইন পোর্টালটি।

ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রামের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন একুশে পদকপ্রাপ্ত সমাজবিজ্ঞানী এবং প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. অনুপম সেন ।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ড. অনুপম সেন বলেন, ‘ভ্রমণ বিশ্বের প্রাচীনতম কাজ। মানুষ নানা কারণে ভ্রমণ করে। জীবিকার জন্য ও আনন্দের জন্য। মানুষ প্রকৃতির কাছে যেতে চায়। চট্টগ্রামে আছে সমুদ্র ও পর্বতের মধুর ধ্বনির সম্মিলন। নানাভাবে চট্টগ্রাম একটি অসাধারণ সুন্দর স্থান। বাংলাদেশও খুব অসাধারণ, কত জায়গা দেখার আছে।‘

ড. অনুপম সেন বলেন, ‘বিদেশের বহু মানুষ বাংলাদেশকে দেখতে চায়। আর বাংলাদেশিরা চায় বিশ্ব দেখতে। আশাকরি তরুণরা ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রামের চোখে বিশ্ব দেখবে।’ তিনি ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রামের এগিয়ে যাওয়া কামনা করে এর উদ্বোধন ঘোষণা করেন।

অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রাম আঞ্চলিক পরিচালক বদরুল হায়দার চৌধুরী, বাংলাদেশ টেলিভিশন চট্টগ্রাম কেন্দ্রের জিএম নিতাই কুমার ভট্টাচার্য, অধ্যাপক কুন্তল বড়ুয়া, অধ্যাপক মো. ইদ্রিস আলী, পর্যটন করপোরেশন চট্টগ্রামের ডেপুটি ম্যানেজার মোহাম্মদ সাইফুর রহমান ।

ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রাম-এর প্রকাশক কাজী এএমএম মমতাজুল ইসলাম এবং স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রধান সম্পাদক শরীফ চৌহান।

দেশ-বিদেশের ভ্রমণ সংক্রান্ত সব খবর পরিবেশনের লক্ষ্য নিয়ে যাত্রা শুরু করা এ অনলাইন পত্রিকাটি সাজানো হয়েছে ১০টি বিভাগে। ভ্রমণ পিপাসু পর্যটক নিজেদের অভিজ্ঞতা প্রকাশের সুযোগ পাবেন ‘ভ্রমণ কাহিনী’ বিভাগে। পাশাপাশি থাকছে ‘ভ্রমণ সংবাদ’। এছাড়া দেশে ও বিদেশের ভ্রমণ বিষয়ক পৃথক বিভাগ।

বৃহত্তর চট্টগ্রাম বিভাগের পর্যটনের সব খবর তুলে ধরা হবে ‘চট্টগ্রাম’ বিভাগে। আছে ‘প্রত্নতত্ত্ব’ এবং ‘উৎসব ও মেলা’ বিভাগ।

ভ্রমণের অন্যতম প্রধান অনুষঙ্গ ‘ভ্রমণ যাতায়াত’ শীর্ষক বিভাগে থাকছে সরকারি-বেসরকারি বিমান সংস্থা এবং সড়ক-নৌ ও রেলপথে ভ্রমণ বিষয়ক যাবতীয় তথ্য।

পর্যটকরা নতুন কোনো স্থানে বেড়াতে গেলে সেখানকার ঐতিহ্যবাহী ও সুস্বাদু সব খাবারের স্বাদ নিতে চান। খাবার-দাবারের খোঁজ দিতে থাকছে ‘ভোজন’ বিভাগ।

এছাড়া  ইতোমধ্যে ট্র্যাভেলিং চট্টগ্রামের ফেসবুক পেইজ চালু করা হয়েছে।

বিভিন্ন দর্শনীয় স্থান ভ্রমণ গন্তব্যের আকর্ষণীয় সব ছবি দিয়ে সাজানো হয়েছে ‘ছবিঘর’। বর্তমান সময়ের চাহিদা বিবেচনায় আছে ভিডিও ফিচার। সঙ্গে থাকছে ইউটিউব চ্যানেল।

x