বোয়ালখালী আসনে দলের প্রার্থী হতে চান মোছলেম উদ্দিন

নগরীতে মতবিনিময় সভা

রবিবার , ৮ জুলাই, ২০১৮ at ৮:৩২ পূর্বাহ্ণ
289

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আ জ ম নাসিরউদ্দিন বলেছেনআগামী জাতীয় নির্বাচন খুবই গুরুত্বপূর্ণ। স্বাধীনতার পক্ষের শক্তির জন্য এ নির্বাচন চ্যালেঞ্জ স্বরুপ। স্বাধীনতা বিরোধী অপশক্তিকে আগামী দিনের রাজনীতি থেকে দূরে রাখতে ও সাধারণ মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনে আগামী নির্বাচনে জননেত্রী শেখ হাসিনাকে আবারো প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত করতে হবে। আমাদের সকল আশা ভরসার আশ্রয়স্থল জননেত্রী শেখ হাসিনা সব খবর রাখেন, সব নেতা সম্পর্কে জানেন। আমরা বিশ্বাস করিসিদ্ধান্ত গ্রহণে তিনি ভুল করেন না। তিনি যার হাতেই নৌকা তুলে দেবেন তাকে জিতিয়ে আনতে আমাদের সবার আন্তরিক প্রচেষ্টা রাখতে হবে। চট্টগ্রাম(বোয়ালখালী) আসনের চাঁন্দগাও, মোহরা, পাঁচলাইশ, পূর্ব ষোলশহর, পশ্চিম ষোলশহর ও ৪৩ নং ওয়ার্ডের আওয়ামীলীগ নেতা ও কাউন্সিলারদের সাথে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমদের এক মতবিনিময় সভায় তিনি একথা বলেন। মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহাতাব উদ্দিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সভায় তিনি বলেনবাংলাদেশের রাজনীতিতে এখন শেখ হাসিনার সমকক্ষ ও বিকল্প নেই। তার হাতেই বাংলাদেশ নিরাপদ।

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমদ বলেনজীবনের সুদীর্ঘ সময় রাজনীতি করছি। ছাত্রলীগের পতাকা বয়ে, জীবনের ঝুঁকি নিয়ে আন্দোলন সংগ্রাম করেছি, মুক্তিযুদ্ধ করেছি, একাধিকবার জেল খেটেছি। আদর্শ বিক্রি করে আহবান থাকা সত্ত্বেও দল ত্যাগ করিনি। আগামী নির্বাচনে আমি চট্টগ্রামের বোয়ালখালী আসনে দলের প্রার্থী হতে আগ্রহী। তবে দৃঢ় কন্ঠে বলবনেত্রী এ আসনে যাকে মনোনয়ন দেবেন তার পক্ষে আমার সকল অভিজ্ঞতা ও শ্রম কাজে লাগাতে কোন অজুহাতেই কার্পণ্য করবো না। নেত্রী ও দলের সিদ্ধান্তের প্রতি অনুগত থাকবো। অতীতেও নেত্রীর মতের বিরোধীতা করিনি, আগামীতেও সেই দু:সাহস দেখাবো না।

সভাপতির ভাষণে মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী বলেনআওয়ামী লীগ প্রাচীন ও বিশাল দল। প্রার্থী হওয়ার মতো অনেক ত্যাগী নেতা এ দলে আছেন। ওদের আকাঙ্খা থাকা দোষের কিছু নয়। কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্ত অনুযায়ী চলতে হবে। আমাদের দলের আদর্শিক শিক্ষা হলো দেশের ও দলের স্বার্থে সঠিক সময়ে নেত্রীর সঠিক সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করতে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করা।

এতে বক্তব্য রাখেন নগর আওয়ামী লীগ নেতা নুরুল ইসলাম, মো এমরান, মোজাহেরুল হক চৌধুরী, কাউন্সিলর মো. কফিল উদ্দিন, কাউন্সিলর সাইফুদ্দিন খালেদ, কাউন্সিলর মোবারক আলী, কাউন্সিলর নূর মোহাম্মদ, সাবেক কাউন্সিলর আবু তাহের, সাবেক কাউন্সিলর মো. এয়াকুব, আওয়ামী লীগ নেতা আ্যাডভোকেট আইয়ুব খান, মো. আবদুর রহিম, মো. এসকান্দার, বোরহান উদ্দিন এমরান, ডা. তিমির বরণ চৌধুরী, নুরুল আমিন চৌধুরী, এস এম জহিরুল আলম জাহাঙ্গীর ও দক্ষিণ জেলা প্রবাসী আওয়ামী লীগ নেতা আহমেদ আলী জাহাঙ্গীর। প্রেস বিজ্ঞপ্তি

x