বোধনের প্রোজ্জ্বল পঞ্চাশ’র সমাবর্তন

বিপ্লব কুমার শীল

বৃহস্পতিবার , ১১ জুলাই, ২০১৯ at ১১:১৪ পূর্বাহ্ণ
22

গত ১৩ ও ১৪ জুন প্রোজ্জ্বল পঞ্চাশ আবর্তনের সমাবর্তনে ছিলো উৎসবমুখর আবহ। নগরীর থিয়েটার ইনস্টিটিউট চট্টগ্রাম মিলনায়তনে প্রতিদিন বিকেল পাঁচটা থেকে রাত নয়টা পর্যন্ত এ অনুষ্ঠান চলে। যেখানে উক্ত আবর্তনের বন্ধুদের সাথে কবিতা ও প্রাণের কথার ভাগাভাগি করেন সমাবর্তনের উর্ত্তীণরা ও আমন্ত্রিত আবৃত্তিশিল্পীরা। উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম ছাড়াও দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের আবৃত্তির বন্ধুরা। দুই দিনব্যাপী এ আয়োজন উৎসর্গ করা হয়েছে বোধন আবৃত্তি স্কুল চট্টগ্রাম এর আমৃত্যু অধ্যক্ষ রণজিৎ রক্ষিত। এতে ছিল মঙ্গলপ্রদীপ প্রজ্বালন,বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা, সনদপত্র প্রদানপর্ব, আবৃত্তিশিল্পী সম্মিলন, কথা ও আবৃত্তি পরিবেশনার অনুষ্ঠানের প্রথমদিন মঙ্গলপ্রদীপ প্রজ্বালন ও কথামালায় অংশ নেন প্রাবন্ধিক ও শিক্ষাবিদ ড.আনোয়ারা আলম, বোধন আবৃত্তি পরিষদের উপদেষ্টা দীপ্তি রক্ষিত বনানী, কবি ও সাংবাদিক কামরুল হাসান বাদল,বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের যুগ্ম-সম্পাদক আবৃত্তিশিল্পী রাশেদ হাসান, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদ ঢাকা বিভাগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবৃত্তিশিল্পী আহসান উল্লাহ তমাল, কুমিল্লা অঞ্চলের সাংগঠনিক সম্পাদক আবৃত্তিশিল্পী এমদাদ হোসেন কৈশোর এবং সিলেট অঞ্চলের সাংগঠনিক সম্পাদক আবৃত্তিশিল্পী মনির হোসেন। কথামালার এ পর্বে স্বাগত বক্তব্যে ছিলেন বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদ চট্টগ্রাম অঞ্চলের সাংগঠনিক সম্পাদক আবৃত্তিশিল্পী সোহেল আনোয়ার। সভাপতিত্ব করেন বোধন আবৃত্তি পরিষদের সাধারণ সম্পাদক এস এম আবদুল আজিজ। এরপর আমন্ত্রিত আবৃত্তিশিল্পী চবি আবৃত্তি মঞ্চের মাসুম বিল্লাহ আরিফ, সন্দীপনার মেজবাহ চৌধুরী, কন্ঠনীড়ের সেলিম রেজা সাগর, অযান্ত্রিকের শুভাশীষ শুভ এবং শব্দনোঙরের বৃষ্টি পুরোহিত, বোধনের অনন্যা পাল ও অর্পিতা চক্রবর্তী অনুষ্ঠানের প্রথমদিন শুরুটা আবৃত্তি পরিবেশন করেন। বোধনের শিশুবিভাগের শিল্পীদের পরিবেশনায়। তারা কবিগুরুর “অন্তর মম বিকশিত করো অন্তরতর হে। নির্মল করো উজ্জ্বল করো, সুন্দর করো হে..কবিতার সদাশয় মুহূর্ত আবৃত্তির মধ্য দিয়ে তুলে ধরে। অনুষ্ঠানের দ্বিতীয়দিন প্রোজ্জ্বল পঞ্চাশ আবর্তনে উত্তীর্ণ প্রশিক্ষণার্থীদের সনদপত্র প্রদান পর্বে অতিথি ছিলেন কবি ও সাংবাদিক বিশ্বজিৎ চৌধুরী, চসিক শিক্ষা ও স্বাস্থ্যবিষয়ক স্ট্যান্ডিংকমিটি’র সভাপতি নাজমুল হক ডিউক, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের অনুষ্ঠান সম্পাদক মনিরুল ইসলাম এবং সম্মিলিত আবৃত্তি জোট চট্টগ্রাম এর সাধারণ সম্পাদক মসরুর হোসেন।স্বাগত বক্তব্যে ছিলেন বোধন আবৃত্তি পরিষদ চট্টগ্রাম এর সাধারণ সম্পাদক এস এম আব্দুল আজিজ। সভাপতিত্ব করেন বোধন আবৃত্তি পরিষদ চট্টগ্রাম এর সভাপতি সোহেল আনোয়ার। তবে অনুষ্ঠানের জাঁকজমক আবহ প্রাচুর্যময় করে তোলে টিআইসি থেকে বিকেলের মনমাতানো সমাবর্তন শোভাযাত্রা।
আমন্ত্রিত অতিথি শিল্পীদের একক পরিবেশনায় ছিলেন আবৃত্তিশিল্পী সঞ্জীব বড়ুয়া, আবৃত্তিশিল্পী রাশেদ হাসান, মসরুর হোসেন ঢাকা স্বরব্যঞ্জনের দীপক ঘোষ, আবৃত্তিশিল্পী দেবাশীষ রুদ্র ও তাসকিয়া তুননুর তানিয়া, আবৃত্তিশিল্পী সুমন বিশ্বাস, আবৃত্তিশিল্পী সেলিম ভূ্‌ঁইয়া, আবৃত্তিশিল্পী সাইদুল করিম সাজু আবৃত্তিশিল্পী এহতেশামুল হক, আবৃত্তিশিল্পী শারমিন মুসতারি নাজু, ইয়াসির সিলমী, শান্তনু মিত্র, মুক্তা বড়ুয়া ও অর্পিতা চৌধুরী। এরপর সবশেষ পরিবেশনায় আনুষ্ঠানিক মঞ্চে কবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের মনে পড়া, মহাদেব সাহার তুমি ও কবিতা, জসীম উদ্দীনের আসমানি, নির্মলেন্দু গুণের এবারই প্রথম তুমি,উচ্চারণগুলি শোকের, নিরেন্দ্রনাথ চক্রবর্তী ‘র অমলকান্তি’র পরিবেশনার আবহ অনন্য হয়ে ওঠে বোধনের প্রশিক্ষণার্থীদের সারল্যময় কণ্ঠে। এ পর্যায়ে উত্তীর্ণ প্রশিক্ষণার্থীদের মধ্যে একক আবৃত্তি করেন তুষার চক্রবর্তী, জুঁই দাশ, মোঃ আরাফাত ইসলাম পাভেল, তারেকুল ইসলাম, রাসু বড়ুয়া, মুহাম্মদ মিছবাহ উদ্দিন খান, মোহাম্মদ মনছুর আলম, জাহানারা বেগম, ইসরাত জাহান ইশা, পল্লবী খাস্তগীর, পূরবী দাশ, উর্মি বড়ুয়া, শংকর প্রসাদ নাথ, মুহাম্মদ তাজউদ্দিন খান, জান্নাতুল বকাইয়া, ফাহমিদা আকতার, অনুপমা দাশ, নূরী জান্নাত তাজি, তাসনীমা তাবাসসুম, খালেদ মোশারফ, বিউটি আক্তার ও বিজন চৌধুরী। তবে এবারের সমাবর্তনে উত্তীর্ণ প্রশিক্ষণার্থীদের কেউ কেউ তাদের পরিবেশিত কবিতার গভীরতার ভাবপ্রকাশে কিছুটা ইতস্থতা দেখালেও উচ্চারণে আরো যত্নের প্রয়োজন। দুইদিনব্যাপী এ আয়োজনে সঞ্চালনায় ছিলেন গৌতম চৌধুরী, মৃন্ময় বিশ্বাস, শুভাগত বড়ুয়া, অজান্তা দাশ টুম্পা, শিশির বড়ুয়া ও উর্মি দেবী। উল্লেখ্য, আগামী ১৯ জুলাই বোধন আবৃত্তি স্কুলের “অমর ৫২” আবর্তনের প্রশিক্ষণার্থী ভর্তির প্রথম উদ্বোধনী ক্লাস শুরু হবে অপর্ণাচরণ সিটি কর্পোরেশন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের দ্বিতীয়তলায়।

x