বুথ ফেরত জরিপের ফল মানতে নারাজ শশী থারুর

মঙ্গলবার , ২১ মে, ২০১৯ at ৪:৫৬ পূর্বাহ্ণ
65

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষে বেশিরভাগ বুথ ফেরত জরিপে ক্ষমতাসীন বিজেপির বিজয়ের আভাস দেওয়া হলেও তা প্রত্যাখ্যান করেছেন কংগ্রেস নেতা শশী থারুর। জরিপের ফলাফল প্রকাশ হতে শুরু করার পর রবিবার টুইট বার্তায় শশী থারুর বলেন, তার বিশ্বাস এসব জরিপের ফল ভুল প্রমাণিত হবে। ২৩ মে সত্যিকার ফল আসার পর্যন্ত অপেক্ষা করতে চান বলেও জানান তিনি।
ভারতে কয়েক দশকের মধ্যে অনুষ্ঠিত সবচেয়ে তিক্ততাপূর্ণ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষ হয়েছে রবিবার (১৯ মে)। দেড় মাস ধরে সাতটি ধাপে অনুষ্ঠিত হয়েছে লোকসভা নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। আগামী ২৩ মে (বৃহস্পতিবার) ফল ঘোষণা করা হবে। আর তার আগেই বুথফেরত জরিপগুলো আভাস দিতে শুরু করেছে মোদির বিজেপি, রাহুল গান্ধীর কংগ্রেস, তাদের জোটভুক্ত দল ও অন্য দলগুলো কত সংখ্যক আসন পাচ্ছে। বুথফেরত জরিপের অনুমান যে সবসময় ঠিক হয়, তা নয়। ২০১৪ সালের জরিপের অনুমান ঠিক হলেও ২০০৯ সালের নির্বাচনে সঠিক অনুমান দাঁড় করাতে ব্যর্থ হয়েছিল জরিপ পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠানগুলো।
অন্তত তিনটি বুথ ফেরত জরিপে দেখা গেছে বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোট ৫৪৩ আসনের লোকসভায় তিন শতাধিক আসনে জয়লাভ করছে। তবে এই জরিপের ফলাফল মানতে রাজি নন কংগ্রেস নেতা শশী থারুর। কংগ্রেসের নেতৃত্বাধীন প্রথম ইউপিএ সরকারের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করে আসা শশী অস্ট্রেলিয়ার সামপ্রতিক নির্বাচনের উদাহরণ টেনে বলেন, সেখানে ৫৬টি বিভিন্ন জরিপের ফল ভুল প্রমাণিত হয়েছে। তিনি দাবি করেন, ‘বহু ভারতীয় নাগরিক কাদের ভোট দিয়েছেন তা নিয়ে জরিপকারীদের কাছে সত্য কথা বলেন না। কারণ তাদেরকে তারা সরকারি লোক বলে মনে করে’।
ন্যাশনাল কংগ্রেস (এনসি) নেতা ওমর আবদুল্লাহও একই মত দিয়েছেন। টুইট বার্তায় তিনি লেখেন, টেলিভিশন বন্ধ, সোস্যাল মিডিয়া লগ আউট করার সময় হয়ে গেছে। বিশ্ব এখনও নিজের অক্ষের ওপর ঘুরছে কিনা তা দেখতে ২৩ তারিখ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে। ভারতের উপরাষ্ট্রপতি ভেনকাইয়াহ নাইডুও বলেছেন বুথ ফেরত জরিপই সব নয়। তিনি বলেন ১৯৯৯ সাল থেকে বেশির ভাগ বুথ ফেরত জরিপই ভুল প্রমাণিত হয়েছে।

x