বাবাকে কোথায় নিয়ে যাচ্ছে?

আজাদী প্রতিবেদন

মঙ্গলবার , ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ at ৪:১৩ পূর্বাহ্ণ
202

পটিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনার ৮ দিন পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে। গত রোববার দিবাগত রাতে নগরীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান নুর হোসেন (৩২)। নিহত নুর হোসেন পটিয়া খরনা ইউনিয়নের মাজির পাড়া এলাকার মৃত কবির আহমদের পুত্র। তিনি নগরীর ‘আইডিএলসি’ নামে একটি আর্থিক প্রতিষ্ঠানের আগ্রাবাদ শাখায় কর্মরত ছিলেন। গতকাল সোমবার আসরের নামাজের পর তার গ্রামের বাড়িতে জানাজার নামাজ শেষে দাফন সম্পন্ন করা হয়। এদিকে গতকাল বিকেলে তার গ্রামের বাড়িতে গিয়ে দেখা যায় এক হৃদয় বিদারক দৃশ্যের। নুর হোসেনের লাশ যখন বাড়ি থেকে বের করা হচ্ছিল তখন তার মেয়ে মোছাম্মৎ ইখরা (৩) স্বজনদের কাছে প্রশ্ন করছিল তার বাবাকে কোথায় নিয়ে যাচ্ছে? এমন প্রশ্ন শোনে সবাই কান্নাই ভেঙে পড়েন। ছোট্ট মেয়েটি বারবার বলছিল, ‘আমার বাবাকে নিয়ে যাচ্ছ কেন?’
পটিয়া ক্রসিং হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মিজানুর রহমান জানান, চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার রাতে নগরীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে নুর হোসেনের মৃত্যু হয়। তিনি গত ৩ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রাম-কঙবাজার মহাসড়কের পটিয়া ভাইয়ের দিঘী এলাকার ওই মর্মান্তিক ঘটনার সময় মাইক্রোবাসের যাত্রী ছিলেন। চন্দনাইশ কাঞ্চননগর থেকে চট্টগ্রাম শহরে নিজ কর্মস্থলে যাওয়ার পথে তিনি দুর্ঘটনার শিকার হন। তার মৃত্যুতে দুর্ঘটনায় নিহতের সংখ্যা ৫ জনে ছড়ালো।

x