ধ্বংসাত্মক রাজনীতি বন্ধ করতে হবে

মঙ্গলবার , ১১ জুন, ২০১৯ at ১০:২১ পূর্বাহ্ণ
19

বাংলাদেশ স্বাধীন দেশ হলেও মনের দিক থেকে আ্ল্লমরা পরাধীন। ব্রিটিশ থেকে পাওয়া, পাকিস্তান থেকে পাওয়া, কষ্টার্জিত এই দেশ। তবুও কেন মূল্য দিতে পারছি না? মূল্যবোধ বাঙালিরা বোঝে না। যদি বুঝত তাহলে এই দেশ সোনার বাংলাদেশে পরিণত হতো। বঙ্গবন্ধু, জিয়াউর রহমান, হুসাইন মো. এরশাদ, বেগম খালেদা জিয়া, শেখ হাসিনা এরা সকলে দেশের কাণ্ডারী। ৪৫ বছরের এই দেশ আজ উন্নয়নের ধারায় শীর্ষে রয়েছে। এর অবদান জননেত্রী শেখ হাসিনার। উনাকে দেশপ্রেমিক বলা যায়। দেশের জন্য উনার মন উদার। কিছু মন্ত্রী আছেন, উনারা দেশের টাকা বিদেশে পাচার করে দেশের রাজনীতি অস্থিতিশীল করে তুলছে। এদেরকে রাজনীতিবিদ বলা যায় না। বলা যায় পেটুক রাজনীতিবিদ। প্রতি পাঁচ বছর পর পর দেশে নির্বাচন হয়। মানুষ মারা যায়, গাড়ি ভাঙচুর হয়, হরতাল হয় ইত্যাদি আরো কত কিছু হয়। আমরা দেশপ্রেমিক হয়েও দেশকে ধ্বংস করতে লেগেছি। দেশের প্রতি মমত্ববোধ আমাদেরকে জানাতে হবে। সেদিন দেখলাম গাড়ির ধর্মঘট। কত কষ্ট, জনগণের কষ্টের শেষ হয় না। রাজস্ব আয় থেকে বঞ্চিত হয়, খাবার দ্রব্যমূল্য দ্বিগুণ বেড়ে যায়, মান নিয়ন্ত্রণ থাকে না। অস্থিতিশীলতার মধ্যে পড়ে যায় এই দেশ। আসুন, আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ হয়ে বলি, এই দেশ আমার। উন্নয়নের শীর্ষে পৌঁছে যাক বাংলাদেশ নামে ছোট্ট একটি দেশ।
– রাজীব হোড়, যুধিষ্ঠির মহাজন বাড়ি, দক্ষিণ কাট্টলী, চট্টগ্রাম।

x