দিনভর আড্ডা-পদচারণায় সিআইইউ’র ওপেন ডে

সোমবার , ২৬ নভেম্বর, ২০১৮ at ১০:১৪ অপরাহ্ণ
106

চিটাগং ইন্ডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটি (সিআইইউ)-এর বসন্তকালীন ওপেন ডে যেন পরিণত হলো ভর্তিচ্ছুদের মিলনমেলায়। উৎসবমুখর পরিবেশ আর অভিভাবক-শিক্ষার্থীদের পদচারণায় প্রাণবন্ত হয়ে উঠে নগরের জামালখানের বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস।

আজ সোমবার (২৬ নভেম্বর) সকালে বেলুন উড়িয়ে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন সিআইইউ’র উপাচার্য অধ্যাপক ড. মাহফুজুল হক চৌধুরী।

এ সময় তিনি বলেন, ‘মানসম্মত শিক্ষা জাতির জন্য নিশ্চিত করাই এখন আগামী দিনের বড় চ্যালেঞ্জ। ভালো মানের কোর্স কারিকুলাম, কর্মমুখী সিলেবাস ও শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে নানামুখী উদ্যোগ নিতে হবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘একজন সচেতন অভিভাবক তার সন্তানকে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি করানোর আগে ভবিষ্যৎ স্বপ্নপূরণের কথা চিন্তা করেন। সিআইইউ শিক্ষার্থীদের ভেতর এমন একটি শিক্ষা ছড়িয়ে দিতে চায় যার ফলে তারা প্রত্যেকে নিজেদের যোগ্যতার পাশাপাশি দেশের জন্য সুনাম বয়ে আনবে।’

বিজনেস স্কুলের প্রফেসর ড. নুরুল আবসার নাহিদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে আরও বক্তব্য দেন স্কুল অভ সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ডিন অধ্যাপক ড. মো. রেজাউল হক খান, স্কুল অভ লিবারেল আর্টস অ্যান্ড সোশ্যাল সায়েন্সের ডিন অধ্যাপক কাজী মোস্তাইন বিল্লাহ, বিজনেস স্কুলের উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. আইয়ুব ইসলাম, স্কুল অভ ল-এর উপদেষ্টা অধ্যাপক মো. জাকির হোসেন, বিজনেস স্কুলের অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর ড. রোবাকা শামশের, ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার আনজুমান বানু লিমা প্রমুখ।

অনুষ্ঠান শুরুর আগেই সকাল থেকে দলবেধে নগরীর বিভিন্ন খ্যাতনামা কলেজের শিক্ষার্থীরা আসতে শুরু করেন ওপেন ডে’তে। এ সময় তারা প্রতিটি স্কুল বা অনুষদগুলোর স্টলে ভিড় করেন। জেনে নেন পছন্দের সাবজেক্টের ভর্তির আদ্যোপান্ত।

কেবল ভর্তি তথ্য নয়, অনুষ্ঠানে আরও ছিল শিক্ষক-শিক্ষার্থী মতবিনিময়, স্পট এডমিশন, ক্লাব কার্যক্রম, অ্যামেরিকান কর্ণার ও পুরো ক্যাম্পাস ঘুরে দেখার সুযোগ, কুইজ প্রতিযোগিতা, পুরস্কার তুলে দেয়াসহ অনেক কিছু।

তাসনেহা বেগম নামের একজন অভিভাবকের সঙ্গে কথা হলে তিনি বলেন, ‘আমার মেয়ে বিবিএ পড়তে চায়। এখানে এসে অনেক ভালো লাগছে। অনেক তথ্য যাচাই-বাছাই করার সুযোগ পাচ্ছি।’

চট্টগ্রাম ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক কলেজের ছাত্রী সুবাহ হাসানের পছন্দ কম্পিউটার সায়েন্স। তার কাছে অনুভূতি জানতে চাইলে একগাল হাসি দিয়ে তিনি বলেন, ‘সময় এখন প্রযুক্তির। তাই পৃথিবীটা হাতের মুঠোয় আনার চেষ্টা করছি। সবার উৎসাহ পেলে ভালো কিছু করতে চাই।’

সিআইইউ কর্তৃপক্ষ জানান, সিআইইউতে বিজনেস স্কুল, স্কুল অভ সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং, স্কুল অভ লিবারেল আর্টস অ্যান্ড সোশ্যাল সায়েন্স ও স্কুল অভ ল-প্রোগ্রামের অধীনে রয়েছে একাধিক বিষয়। শিগগিরই বিশ্ববিদ্যালয়টির স্থায়ী ক্যাম্পাসের কাজ শুরু হচ্ছে।

x