‘টেকসই ব্যাংকিং কার্যক্রম ত্বরান্বিত করতে প্রয়োজন সমন্বিত উদ্যোগ’

শনিবার , ৩১ আগস্ট, ২০১৯ at ১১:২২ পূর্বাহ্ণ
36

বাংলাদেশ ইন্সটিটিউট অব ব্যাংক ম্যানেজমেন্টের (বিআইবিএম) এক গবেষণা প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, টেকসই এবং গ্রীন ব্যাংকিং কার্যক্রম ত্বরান্বিত করতে সমন্বিত উদ্যোগ প্রয়োজন। বাংলাদেশ ব্যাংক, সরকারি-বেসরকারি ব্যাংক এবং গ্রাহকদেরও টেকসই এবং গ্রীন ব্যাংকিং কার্যক্রম বাস্তবায়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। টেকসই ব্যাংকিং নিশ্চিত করতে হলে অর্থনৈতিক, সামজিক এবং পরিবেশ এ তিন ক্ষেত্রেই যথাযথ অগ্রগতি সাধন করতে হবে।
গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর মিরপুরে বিআইবিএম অডিটোরিয়ামে ‘সাসটেইনেবল ব্যাংকিং অ্যাক্টিভিটিস অব বাংলাদেশ’ শীর্ষক বার্ষিক পর্যালোচনা কর্মশালায় প্রতিবেদনটি উপস্থাপন করা হয়। কর্মশালায় প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর এস এম মনিরুজ্জামান। খবর বাসসের।
বিআইবিএম’র ড. মোজাফফর আহমদ চেয়ার প্রফেসর অধ্যাপক ড. বরকত-এ-খোদার সভাপতিত্বে কর্মশালায় অন্যান্যের মধ্যে বিআইবিএম’র সুপারনিউমারারি অধ্যাপক হেলাল আহমদ চৌধুরী ও ইয়াছিন আলি, তৌহিদুল আলম খান, মোহাম্মদ জিয়াউল হাসান মোল্লা উপস্থিত ছিলেন। কর্মশালায় গবেষণা প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন বিআইবিএম’র অধ্যাপক ড. শাহ মো. আহসান হাবীব। এস এম মনিরুজ্জামান বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংক গত কয়েক বছর ধরে সাসটেইনেবল ব্যাংকিংয়ের জন্য কাজ করছে। মূলত গ্রীন ব্যাংকিং, কর্পোরেট সোস্যাল রেসপনসিবিলিটি (সিএসআর) এবং ইনক্লুসিভ ফাইন্যান্স বেশি গুরুত্ব দিচ্ছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। গ্রীন ব্যাংকিংয়ের উদ্যোগ ব্যাংকার এবং গ্রাহকদের মধ্যে পরিবেশের ঝুঁকি বিষয়ে সচেতনতা তৈরি করেছে। গ্রীন ব্যাংকিংয়ে এখনও এগিয়ে বেসরকারি বাণিজ্যিকগুলো। এসব ব্যাংক এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলো সিএসআরের মাধ্যমে ত্রাণ বিতরণ এবং দুর্যোগে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে।

x