টিকিট কালোবাজারিতে জড়িত রেল কর্মচারীরা গ্রেপ্তার ৪

আজাদী প্রতিবেদন

বৃহস্পতিবার , ১৪ জুন, ২০১৮ at ৪:৫৬ পূর্বাহ্ণ
38

টিকিট কালোবাজারিতে জড়িত রেলওয়ের কর্মচারীদের সাথে যোগসাজসে অগ্রিম টিকিট সংগ্রহ করে অতিরিক্ত দামে বিক্রি করার সময় ৪ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। গত মঙ্গলবার গভীর রাতে রেল স্টেশনের কাছে নিউমার্কেটের সামনে থেকে মো. শাহ আলম (৪৮), প্রদীপ পাল (৪০), শাহ আলম প্রকাশ জামাই শাহ আলম (৩৬) ও দেলোয়ার হোসেন প্রকাশ হাসান (৩৮) নামে চার টিকিট কালোবাজারিকে গ্রেফতার করে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। তাদের কাছ থেকে ১৪ জুন থেকে ১৯ জুন পর্যন্ত সময়ের সোনার বাংলা, তূর্ণা এক্সপ্রেস, সুবর্ণ এক্সপ্রেস ও মহানগর গোধূলী ট্রেনের ৪৩টি সিটের ১৯টি টিকেট পাওয়া গেছে। নগর গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক ইলিয়াস খান আজাদীকে বলেন, গ্রেফতারের পর চারজন পুলিশের কাছে এসব টিকিট রেলওয়ে কর্মচারীদের মাধ্যমে সংগ্রহ করেছে বলে স্বীকার করেছে। তিনি জানান, গত এক সপ্তাহ ধরে তাদের নজরদারিতে রেখে গ্রেফতার করেছি আমরা। গ্রেফতারকৃতদের আরো জিজ্ঞাসাবাদ করে তাদের সাথে জড়িতদের গ্রেফতারে অভিযান চালানো হবে।

গোয়েন্দা পুলিশ সূত্র জানায়, নিউমার্কেটের সামনে টিকেটগুলো বিক্রির জন্য অপেক্ষারত শাহ আলম ও প্রদীপ পালকে প্রথমে গ্রেফতার করা হয়। আমরা সেখানে পৌঁছালে উপস্থিতি টের পেয়ে দুজন পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। তখন ধাওয়া করে শাহ আলম ও প্রদীপ পালকে আটক করা হয়। তাদের দেহে তলহ্মাশি চালিয়ে কয়েকটি ট্রেনের টিকেট পাওয়া যায়। তাদের দেওয়া তথ্যমতে স্টেশন রোডের প্যারামাউন্ট স্টোরের গলি থেকে অন্য দুজনকে কালোবাজারের টিকেটসহ আটক করা হয়। শাহ আলম ও দেলোয়ার এর আগেও টিকেট কালোবাজারির দায়ে গ্রেফতার হয়েছিল বলে জানা গেছে।

পুলিশ পরিদর্শক ইলিয়াস বলেন, ওই চারজন জানিয়েছে তারা রেলের কিছু কর্মচারী ও নিরাপত্তা রক্ষীদের মাধ্যমে এসব টিকেট সংগ্রহ করে এবং উচ্চমূল্য বিক্রি করে। এ ঘটনায় আটক চারজনের বিরুদ্ধে নগরীর কোতোয়ালী থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা করেছে গোয়েন্দা পুলিশ।

x