‘জ্বীনের বাদশার সহকারীর’ দুই বছরের সাজা

শুক্রবার , ১২ জুলাই, ২০১৯ at ৭:৪১ পূর্বাহ্ণ
120

‘জ্বীনের বাদশার সহকারী’ পরিচয়ে ৯০ হাজার টাকা ও সোনার চেইন-কানের দুল হাতিয়ে নেয়ার দায়ে এক নারীকে দুইটি ধারায় দুই বছরের সাজা দিয়েছে আদালত। গতকাল বৃহস্পতিবার চট্টগ্রামের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম কৌশিক আহাম্মদ খোন্দকার এই আদেশ দিয়েছেন বলে জেলা পুলিশের আদালত পরিদর্শক (প্রসিকিউশন) বিজন কুমার বড়ুয়া জানান। দণ্ডিত মোছা. রুনা আক্তার প্রকাশ রহিমা বেগম চট্টগ্রামের মীরসরাই উপজেলার গড়িয়াইশ এলাকার লাতুর স্ত্রী। খবর বাসসের।
জেলা পুলিশের আদালত পরিদর্শক (প্রসিকিউশন) বিজন কুমার বড়ুয়া বলেন, আসামির বিরুদ্ধে পেনাল কোডের ৪১৭ ও ৪১৯ ধারায় অভিযোগ গঠন করা হয়। এই দুটি ধারায় এক বছর করে তাকে মোট দুই বছর কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।
আদালত সূত্র জানায়, জ্বীনের বাদশার সাথে কবিরাজি কাজ করে বলে দাবি করেন রুনা। ঝাড়ফুঁকসহ সোনার ডেক তুলে দেয়ার কথা বলে নানাজনের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ ছিল তার বিরুদ্ধে।
এরই ধারাবাহিকতায় এক নারীর সাথে তার স্বামীর পারিবারিক বিরোধের বিষয়টি বুঝতে পেরে সে সুযোগকে কাজে লাগিয়ে ওই নারীকে ধনী করে দেয়ার প্রলোভন দেখায় রুনা। এরপর চার কিস্তিতে মোট ৯০ হাজার টাকা ও সোনার চেইন ও কানের দুল তিনি হাতিয়ে নেন।
এ ঘটনায় ২০১৪ সালের ২৮ এপ্রিল থানায় প্রতারণার অভিযোগে রুনার বিরুদ্ধে মীরসরাই থানায় মামলা হয়। এ মামলায় একই বছরের ২৯ মে অভিযোগপত্র দাখিল করে পুলিশ। ৯ জন সাক্ষীর মধ্যে ৬ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ করে রায় ঘোষণা করেন আদালত।

x