জালিয়ানওয়ালাবাগ হত্যাকাণ্ড: ইতিহাসের এক নির্মম অধ্যায়

শনিবার , ১৩ এপ্রিল, ২০১৯ at ১০:২৬ পূর্বাহ্ণ
31

জালিয়ানওয়ালাবাগ ইতিহাসপ্রসিদ্ধ একটি উদ্যান। পাঞ্জাবের অমৃতসর শহরের পুবদিকে প্রাচীরঘেরা বিস্তীর্ণ এই উদ্যানটিতে ১৯১৯ সালের ১৩ এপ্রিল ব্রিটিশ অপশাসনের বিরুদ্ধে আন্দোলনকারীদের নির্মমভাবে হত্যা করে ব্রিটিশ সেনাবাহিনী।
আজ এই নৃশংস হত্যাকাণ্ডের শততম বার্ষিকী। ১৯১৯ সালের ১৮ মার্চ ব্রিটিশ-ভারতে বড়লাট লর্ড চেমসফোর্ড কুখ্যাত রাউলাট আইন পাস করে রাজনৈতিক আন্দোলনকারীদের বিনা বিচারে আটক রাখার ক্ষমতা দেয়। এই আইনের প্রতিবাদে আন্দোলন জোরদার হতে থাকলে ১৯১৯ সালের ১২ এপ্রিল এক ঘোষণার মাধ্যমে ব্রিটিশ জেনারেল ডায়ার অমৃতসরে সভা-সমাবেশ নিষিদ্ধ ঘোষণা করেন। এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে বিক্ষুব্ধ জনতা ১৩ এপ্রিল জালিয়ানওয়ালাবাগে সমাবেশের ডাক দেয়।
এতে সাড়া দিয়ে সমাবেশে যোগ দেয় প্রায় দশ হাজার নিরস্ত্র, সাধারণ মানুষ। উদ্যানটিতে ছিল কেবল একটি প্রবেশ পথ এবং খুব ছোট ছোট পাঁচটি বহির্গমন পথ।
সমাবেশ চলাকালে জেনারেল ডায়ার কিছু সংখ্যক সশস্ত্র সৈন্য নিয়ে উদ্যানের সব পথ বন্ধ করে দিয়ে নিরস্ত্র জনতার ওপর এলোপাতাড়ি গুলিবর্ষণ করে।
এতে প্রায় এক হাজার লোক নিহত ও অসংখ্য আহত হয়। ইতিহাসে এটি জালিয়ানওয়ালাবাগ হত্যাকাণ্ড নামে পরিচিত। বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ এই নৃশংসতার প্রতিবাদে ব্রিটিশ সরকার প্রদত্ত ‘নাইট’ উপাধি বর্জন করেন।

x