চকরিয়া বিএনপির সভাপতিসহ ৮ জন গ্রেপ্তার, ৩৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা

নাশকতার পরিকল্পনা ও গাড়ি ভাংচুর

চকরিয়া প্রতিনিধি

শুক্রবার , ৯ নভেম্বর, ২০১৮ at ৬:২১ পূর্বাহ্ণ
35

চকরিয়ায় নাশকতার পরিকল্পনা করা এবং মহাসড়কে গাড়ি ভাংচুরের অভিযোগে বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনের ৩৬ জনের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা করেছে পুলিশ। উক্ত ঘটনায় বুধবার রাতে ৮ জন নেতাকর্মীকে গ্রেপ্তার করা হয়। গতকাল বৃহস্পতিবার আদালতের মাধ্যমে তাদেরকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়। এর আগে বুধবার রাতে ডুলাহাজারাস্থ খোকন মিয়ার বাড়িতে নাশকতার পরিকল্পনাকালে গোপন বৈঠকে ঝটিকা অভিযান চালায় পুলিশ। এসময় খোকন মিয়াসহ ৮ জনকে গ্রেপ্তার এবং নাশকতার নির্দেশনা সম্বলিত হাতে লেখা ১০টি চিরকুট ও ১০টি লাঠি জব্দ করা হয়।
গ্রেপ্তারকৃত আসামীরা হলেন-জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি ও চকরিয়া বিএনপির সভাপতি ডুলাহাজারার সাবেক চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান চৌধুরী খোকন মিয়া, খুটাখালী ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি জাফর আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক ফরিদুল আলম, উপজেলা যুবদলের যুগ্ম আহবায়ক আবদুস ছালাম, ডুলাহাজারা ইউনিয়ন যুবদলের যুগ্ম আহবায়ক নুরুল আজিম, খুটাখালী ইউনিয়ন ছাত্রদল নেতা হেলাল উদ্দিন, ছাত্রদল নেতা সোহেল, বিএনপি কর্মী মফিজুর রহমান মুসা। এছাড়া পলাতক রয়েছেন এজাহারনামীয় পৌরসভা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ফখরুদ্দীন ফরায়েজী, যুবদল নেতা ইব্রাহিম খলিল কাঁকন, বিএনপি নেতা সোয়াইবুল ইসলাম সবুজ, সালাহউদ্দিন, রানা হামিদ, বিএনপি নেতা মোবারক আলী, আনিছুর রহমান, আলী আকবর, হাসেম আলী, বখতিয়ার, হাবিব উল্লাহ, ইউসুফ, জয়নাল আবেদীন, নজির আহমদ, ওবাইদুল্লাহ নূর সিদ্দিকী, মহিদুল ইসলাম। এব্যাপারে চকরিয়া থানার ওসি মো. বখতিয়ার উদ্দীন চৌধুরী জানান, জাতীয় নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা আগেরদিন বুধবার রাতে জনমনে আতঙ্ক ছড়াতে বিএনপি নেতাকর্মীরা ডুলাহাজারায় মহাসড়কে গাড়ি ভাংচুর করে। এরপর তারা নাশকতার পরিকল্পনা করতে
গোপন বৈঠকে বসে উপজেলা বিএনপির সভাপতি মিজানুর রহমান চৌধুরীর বাড়িতে। সংবাদ পেয়ে পুলিশ গোপন বৈঠক থেকে সাতজনসহ ৮জনকে গ্রেপ্তার করে। ওসি বখতিয়ার বলেন, গ্রেপ্তারকৃত আসামীদের আজ (গতকাল) সকালে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। তফসিল ঘোষণার পর যাতে আইন-শৃঙ্ক্ষলা পরিস্থিতির অবনতি না ঘটে সেজন্য পুলিশের তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে। মামলার এজাহারনামীয় আসামীদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান চলছে।

x