আসামে পুলিশের সামনে মা ও ছেলেকে পিটিয়ে হত্যা

মঙ্গলবার , ১১ জুন, ২০১৯ at ১১:০০ পূর্বাহ্ণ
26

আসামে একজন পুলিশ সদস্যের সামনেই এক ব্যক্তি ও তার মাকে পিটিয়ে হত্যা করেছে উত্তেজিত গ্রামবাসী। শুক্রবার আসামের তিনসুকিয়া জেলার শেওপুর চা বাগানে এ ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাটির একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপকভাবে শেয়ার হওয়ার পর এটি গণমাধ্যমের নজরে পড়ে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি। পুলিশ জানিয়েছে, তার সাবেক স্ত্রী ও তাদের দুই মাস বয়সী সন্তানকে হত্যা করেছে সন্দেহে গ্রামবাসী অজয় তাঁতি ও তার মা যমুনা তাঁতীকে পিটিয়ে মেরে ফেলেছে। খবর বিডিনিউজের।
ঘটনাস্থলে একজন পুলিশ সদস্যের উপস্থিত থাকার কথা স্বীকার করে শত শত উত্তেজিত লোকের সামনে তার কিছু করার ছিল না বলে দাবি করেছে পুলিশ। অজয় তাঁতীর স্ত্রী রাধা তাঁতী গড় ও তাদের দুই মাস বয়সী কন্যা ৫ জুন নিখোঁজ হয়। এ ঘটনা নিয়ে রাধার পরিবারের সদস্যরা থানায় অভিযোগ দায়ের করে।
শুক্রবার স্থানীয় বাসিন্দারা রাধার লাশ তাদের বাড়ির কাছে একটি সেপ্টিক ট্যাংকের ভিতরে খুঁজে পায়। এরপরই উত্তেজিত জনতা রড ও লাঠি নিয়ে অজয় তাঁতী ও তার মায়ের ওপর হামলা চালায়। ঘটনাস্থলেই যমুনা তাঁতী নিহত হন। পরদিন শনিবার সকালে জেলা হাসপাতালে অজয়ের মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় দুটি পৃথক মামলা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। এর একটি উত্তেজিত জনতার হামলায় দু’জনের মৃত্যু সংক্রান্ত ও অপরটি রাধার বাবার দায়ের করা। রাধা ও অজয়, উভয়ের পরিবারই চা বাগানের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সম্প্রদায়ভুক্ত এবং তারা সবাই একই বাগানে কাজ করতেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

x