আশীষ কুমার বড়ুয়া (বয়স হতাশা নয় বরং শক্তি)

সোমবার , ১১ মার্চ, ২০১৯ at ৬:৫৬ পূর্বাহ্ণ
118

সবার যেমন বয়স বাড়ে মানুষেরও তেমনি বয়স বাড়ে।বয়স বাড়লে মানুষ নিজেই বুঝতে পারে তার বয়স বাড়ছে। প্রকৃতির নিয়মে শারীরিক-মানসিক শক্তির ক্রমাগত ক্ষয় মানুষকে বুঝিয়ে দেয় তার বয়সাধিক্যের কথা।আয়নায় তাকালে চোখে-মুখে-কপালে ভাঁজ, শীতকালের মতো বিবর্ণ ধূসর চেহারা,আবছা সাদা-কালো চুল-গোঁফ দেখে যৌবনের সেই আমিকে আর খুঁজে পাওয়া যায় না।এতে অনেক মানুষের মাঝে এক ধরনের হতাশা তৈরি হয়। বাস্তবতা হলো, পৃথিবীর সমস্ত কিছুই পরিবর্তনশীল এবং ক্ষনস্‌হায়ী।যার উৎপত্তি আছে,তার বিলয় আছে। মানুষের বয়স ও তার একটি।বরং এই বয়স,চেহারার জন্য হাউ-হুতাশ না করে, জীবনের পুরো সময়ের অর্জিত জ্ঞানকে প্রজন্মের মাঝে ছড়িয়ে দিতে পারলেই বৃদ্ধ মানুষটি নতুনভাবে বেঁচে থাকার প্রেরণা পাবে। চাকরির ব্যস্ততার কারণে এতদিন যে সামাজিক কাজগুলো করার অবসর মিলেনি সেই সেবামূলক,শিক্ষামূলক কাজগুলোতে সময় দিলে অবসাদ-হতাশা যেমন কাটবে, তেমনি মানসিক প্রশান্তিও খুঁজে পাওয়া যাবে।তখন বর্তমান প্রজন্মও একজন সামাজিক আইকন-সমাজ সংস্কারক হিসেবে বৃদ্ধ মানুষটিকে তারা গ্রহণ করবে। মানুষটিও তখন বিস্মৃতির সাগরে হারিয়ে না গিয়ে প্রজন্মের মাঝে গৌরবের সাথে বেঁচে থাকবে যুগযুগ ধরে……।

x