আফগান সিরিজে বিশ্রাম চাইলেন তামিম

ক্রীড়া প্রতিবেদক

রবিবার , ১১ আগস্ট, ২০১৯ at ৯:০৭ পূর্বাহ্ণ
72

চলতি বছরটা একদমই ভালো যাচ্ছে না বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের বাঁহাতি ওপেনার তামিম ইকবালের। ওয়ানডে ক্রিকেটে ২০১৮ সালে প্রায় ৮৬ গড়ে ৬৮৪ রান করেছিলেন তামিম। ছয়টি হাফ সেঞ্চুরির সঙ্গে করেছিলেন ২টি সেঞ্চুরি। সেই তামিম কিনা চলতি বছরে একেবারেই অচেনা। ব্যাট কথা বলছেনা মোটেও। এই বছরে মাত্র ২৪.৫৬ গড়ে রান করতে পেরেছেন ৪৪২ । নেই কোনো সেঞ্চুরি। হাফ সেঞ্চুরি মাত্র ৩টি। সবশেষ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে ৩ ম্যাচে তার ব্যাট থেকে এসেছে মাত্র ২১ রান। এছাড়া বিশ্বকাপেও মাত্র ২৯.৩৭ গড়ে করেছিলেন ২৩৫ রান। বিশ্বকাপে তামিমের উপর প্রত্যাশাটা বেশি থাকলেও সেটা পূরণে ব্যর্থ হয়েছেন তামিম। মোটেও ভাল করতে পারেননি বিশ্বকাপে। যা বেশ ভুগিয়েছে বাংলাদেশকে। তামিম তার সেরাটা দিতে পারলে হয়তো বাংলাদেশ আরো দু একটি ম্যাচ জিততে পারতো। তেমনটাই মনে করেন অনেকেই। কিন্তু তামিম ব্যর্থ হওয়ায় বাংলাদেশও ব্যর্থ। তামিমের ব্যাটের এমন রানখরা কাটানোর জন্য তামিমের প্রিয় বন্ধু সাকিব আল হাসান দিয়েছিলেন দারুণ এক পরামর্শ। গত ১ আগস্ট রাজধানীর বনানী বিদ্যা নিকেতন স্কুল এন্ড কলেজে ডেঙ্গু বিষয়ক সচেতনতামূলক কার্যক্রমে উপস্থিত হয়ে ক্রিকেটের বিষয়েও কথা বলেছিলেন সাকিব।
যেখানে তামিমের জন্য কোনো পরামর্শ আছে কিনা জানতে চাওয়া হলে সাকিব বলেন, দেখুন একজন ক্রিকেটারের এমন সময় আসতেই পারে। এখন আমার মনে হয় যে ওর জন্য যেটা দরকার, খুব ভালো একটা বিশ্রাম নেয়া। নিজেকে রিকভার করা। ফ্রেশ হওয়া এবং আগের চেয়ে ভালোভাবে ফিরে আসা। আমি নিশ্চিত তামিম এটা করবে। বন্ধু সাকিবের এ কথাই যেনো এবার রাখলেন তামিম। তাই বিশ্রামের আবেদন করেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডে। আগামী মাসে আফগানিস্তানের বিপক্ষে একমাত্র টেস্ট ও পরে টি-টোয়েন্টির ত্রিদেশীয় সিরিজ থেকে বিশ্রাম চান দেশসেরা এ ওপেনার। জনপ্রিয় ক্রিকেটভিত্তিক ওয়েবসাইট ক্রিকবাজকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন বিসিবির ক্রিকেট অপারেশনস কমিটির চেয়ারম্যান আকরাম খান। বিশ্রাম চেয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে আবেদন করেছেন তামিম। এমনটাই জানিয়েছেন আকরাম। ক্রিকবাজকে আকরাম বলেন, আমরা তামিমের কাছ থেকে বিশ্রাম চাওয়ার একটি চিঠি পেয়েছি। আপাতত ঈদের ছুটিতে রয়েছে সবাই। ঈদ শেষে এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবো আমরা। আগামী ৫ থেকে ৯ সেপ্টেম্বর চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে আফগানিস্তানের বিপক্ষে হবে একমাত্র টেস্ট। পরে জিম্বাবুয়েকে সঙ্গে ১৩ থেকে ২৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত হবে ত্রিদেশীয় সিরিজটি। এখন তামিমকে বিশ্রাম দেবে কিনা ক্রিকেট বোর্ড সেটা সময়ই বলে দেবে। কারণ তামিমকে ছাড়া কতটা কি করে বাংলাদেশের উদ্বোধণী জুটি সেটাও দেখার বিষয়। কারন দলটা যখন আফগানিস্তান তখন তাদের বিপক্ষে কোন ধরনের ঝুঁকি নিতে চায়না বিসিবি। এখন তামিমের ব্যাপারে কি সিদ্ধান্ত নেয় বিসিবি সেটাই দেখার অপেক্ষা।

x